ঢাকা, ২০২২-০৮-১৫ | ৩১ শ্রাবণ,  ১৪২৯
সর্বশেষ: 
জাকার্তায় বন্ধুর সঙ্গে লিভ টুগেদার করতেন আনারকলি মার্কিন নজরে বাংলাদেশ, বাড়ছে চীনের আগ্রহ, চলছে নানা সমীকরণ চলন্ত বাসে যাত্রীদের ৩ ঘণ্টা জিম্মি করে ডাকাতি ও ধর্ষণ তারা আমাকে সরাতে চায়: প্রধানমন্ত্রী উবার ও লিফট ড্রাইভারদের বেতন বৃদ্ধি নিরাপত্তা নিয়ে শংকিত আমেরিকা -চিকেন ফার্মে বার্ড ফ্লু আতঙ্ক মেডিকেইড হারাচ্ছেন লাখো আমেরিকান পাল্টে যাচ্ছে রাজনীতির হিসাব-নিকাশ! অনুসন্ধানী সাংবাদিকতায় হস্তক্ষেপ না করার ঘোষণা যুক্তরাষ্ট্র বিচার ১২৩ বছর আগে গ্রেপ্তার গাছ, শেকলে বন্দি আজো ফ্রান্স প্রেসিডেন্টকে চড় মারার মাশুল কতটা? কুরআনের আয়াত বাতিলে ‘ফালতু’ রিট করায় আবেদনকারীকে জরিমানা আদালতের দেশে বিদ্যুৎ উৎপাদনে নতুন রেকর্ড ওয়াক্ত ও তারাবি নামাজের জামাতে সর্বোচ্চ ২০ জন বিদেশে মারা গেছে ২৭০০ বাংলাদেশি আর্থিক ক্ষতি মেনেই সাঙ্গ হলো বইমেলা সুন্দরী মডেলের অপহরণ চক্র ! মোটরসাইকেল উৎপাদনে বিপ্লবে দেশ যুক্তরাজ্যে করোনার আরও মারাত্মক ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত ৮ থেকে ১২ সপ্তাহ বিরতিতে অক্সফোর্ডের টিকা বেশি কার্যকর সবাই সপরিবারে নির্ভয়ে করোনা ভ্যাকসিন নিন: প্রধানমন্ত্রী শেষ রাতে দু’রাকাত নামাজ জীবন পরিবর্তন করে দিতে পারে নতুন করোনাভাইরাস আতঙ্কে ইউরোপ-আমেরিকার শেয়ারবাজারে ধস জুনের মধ্যে আসছে আরও ৬ কোটি করোনার টিকা বাড়িভাড়ায় নাভিশ্বাস, ফের বাড়ানোর পাঁয়তারা অমিতাভের পর অভিষেকও করোনা আক্রান্ত বিশ্ব ধরেই নিচ্ছে বাংলাদেশ জালিয়াতির দেশ : শাহরিয়ার কবির ইরাকে মর্গের পাশে রাত কাটছে বাংলাদেশিদের! বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার পরামর্শক বাংলাদেশের সেঁজুতি সাহা সাহেদর টাকা থাকত নাসির, ইন্ডিয়ান বাবু ও স্ত্রী সাদিয়ার কাছে ‘বাংলাদেশিদের ভোট দিন’ মানবতার সেবায় কমিউনিটি নেতৃবৃন্দ অনিশ্চিতায় ফেরদৌস খন্দকার কৃষ্ণাঙ্গ হত্যা থামছেই না বিক্ষোভ অব্যাহত গভর্নরের সিদ্ধান্ত মানছে না মেয়র অভিবাসীরা জিতলেন হারলেন ট্রাম্প করোনার ধাক্কা - মে মাসে রপ্তানি কমেছে ২০ হাজার কোটি টাকার পুলিশ সংস্কার বিল উঠলো মার্কিন কংগ্রেসে লাইফ সাপোর্টে থাকা নাসিমের জন্য মেডিকেল বোর্ড পুনর্গঠন আইসিইউ নিয়ে হাহাকার ঈদের ছুটিতে অনিরাপদ হয়ে উঠছে গ্রামগুলো ঘরে ঘরে ভুতুড়ে বিল, বিদ্যুৎ বিভাগ বলছে সমন্বয় হবে নিউইয়র্কে ‘ট্রাম্প ডেথ ক্লক’ নিউইয়র্কে জেবিবিএ’র পরিচালক ইকবালুর রশীদ লিটনের মৃত্যু নিজ আয়ে চলা শুরু করলো বাংলাদেশ স্যাটেলাইট কোম্পানি কবে খুলবে নিউইয়র্ক নিউইয়র্কে এবার নতুন ভাইরাসে শিশুরা আক্রান্ত

সৌদি থেকে গৃহকর্মীর আকুতি

`ওরা আমাকে মেরে ফেলবে বাঁচতে চাই`

প্রকাশিত: ০৫:৫৮, ১২ এপ্রিল ২০২২  

'লোহার পাইপ দিয়ে পিটিয়ে পুরো শরীরে কালো বানিয়ে দিয়েছে। কাতরাচ্ছি ব্যথায়। ওষুধও দিচ্ছে না। পেট ভরে খেতে দেয় না চার মাস। আমি বাঁচতে চাই। এখানে থাকলে ওরা আমাকে মেরে ফেলবে। দয়া করে এই দেশ থেকে আমাকে উদ্ধার করে নিয়ে যান।' অ্যাপসভিত্তিক যোগাযোগমাধ্যম ইমোতে এমন ভয়াবহ আর্তনাদ নিয়ে  কষ্টের কথা জানান সৌদি আরব প্রবাসী গৃহকর্মী ৩৯ বছর বয়সী শিখা বেগম।

রাজধানীর উত্তরখানের চানপাড়ায় একটি ভাড়া বাসায় থাকে শিখার পরিবার। তার স্বামী হযরত আলী; সংসারে দুই ছেলে ও এক মেয়ে। ঘরে সচ্ছলতা আনতে গত সেপ্টেম্বরে রাজধানীর বনানীর একটি রিক্রুটিং এজেন্সির মাধ্যমে গৃহকর্মী হিসেবে সৌদি আরবে যান শিখা। সেখানে যাওয়ার পর তিন মাস সবকিছু ছিল ঠিকঠাক। পেয়েছেন বেতন ও খাবার। এর পর থেকে বন্ধ বেতন। খাবারও দেওয়া হয় না ঠিকমতো। বেতন-খাবার চাইলেই তার ওপর নেমে আসে নির্মম নির্যাতনের খÿ। তামান্না নামের এক নারীর সহায়তায় সৌদিতে যান শিখা। স্ত্রীকে দেশে ফিরিয়ে আনতে তার সঙ্গে যোগাযোগও করেন হযরত আলী। তবে তামান্নার পক্ষ থেকে মেলেনি সাড়া। হযরত আলীর সঙ্গে গত রোববার সন্ধ্যার পর কথা হয়  ।

তিনি বলেন, 'স্ত্রীকে দেশে ফিরিয়ে আনতে হন্যে হয়ে ঘুরছি বিভিন্ন জায়গায়। কোনো ব্যবস্থা হচ্ছে না। স্ত্রী দেশে ফেরার জন্য প্রতিদিন ফোন করে কান্নাকাটি করছে।'

হযরত আলীর ইমো নম্বর থেকে শিখা বেগমের সঙ্গে রোববার কথা হয়। তিনি জানান, ২৬ সেপ্টেম্বর তিনি সৌদিতে যান। বিমানবন্দর থেকে সে দেশের একটি অফিসে নেওয়া হয় তাকে। এক দিন পরই তাকে আতর আলি নামের একজনের বাসায় কাজ দেওয়া হয়। কথা ছিল, মাসে দেওয়া হবে ২২ হাজার টাকা বেতন। পরে দেওয়া হয় ১৬ হাজার টাকা। পরিবারের সঙ্গে ফোনে কথা বলার জন্য ইন্টারনেট সুবিধা দেওয়ার কথা থাকলেও দেয়নি। বেতন থেকে মাসে ইন্টারনেট খরচ চলে যায় তিন হাজার টাকা। ডিসেম্বর পর্যন্ত ঠিকমতো বেতন পেয়েছেন তিনি। এর পর থেকে বেতন বন্ধ। রমজানে সেহরিতে একটি রুটি এবং ইফতারের সময় দুটি রুটি পান তিনি। রমজানের আগে সকালে দুটি পাতলা রুটি, দুপুরে অল্প একটু ভাত দেওয়া হতো; যা খেয়ে ক্ষুধা মিটত না তার। বাড়ির মালিকের কাছে বেতন ও পেট ভরে খাবার দাবি করায় গত ২৯ মার্চ তাকে ওই বাসা থেকে প্রাইভেটকারে তিন ঘণ্টার পথ দূরত্বে একটি অফিসে নিয়ে যান আতর আলি। সেখানে একটি কক্ষে আটকে মেঝেতে ফেলে লোহার পাইপ দিয়ে শিখাকে পেটানো হয়।

তিনি জানান, তার হাঁটু, দুই হাতের আঙুল, হাতের কনুইসহ শরীরের বিভিন্ন অংশে পাইপের আঘাতের কারণে কালচে দাগ হয়ে গেছে। প্রচণ্ড ব্যথায় ঠিকমতো হাঁটতে পারছেন না, হাত নড়াচড়া করতেও কষ্ট হচ্ছে। এই শরীর নিয়েও কাজ করতে হচ্ছে তাকে। শিখা বলেন, 'আমার শরীরের বিভিন্ন স্থানে ফুলে গেছে। কষ্ট হচ্ছে খুব। অনেকবার বাড়ির মালিককে বলেছি, ওষুধ কিনে দিতে। একটা ওষুধও দেয়নি। কত দিন পেট ভরে খাইনি।' দেশে ফেরার আকুতি জানান এই নারী।

শিখার স্বামী হযরত আলী বলেন, 'সংসারে বড্ড অভাব। তাই স্ত্রীকে সৌদি আরবে গৃহকর্মীর কাজে পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম। একই এলাকার শাহ আলম নামের এক ব্যক্তি বনানীতে তামান্না নামের এক নারীর সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেন। তামান্না একটি রিক্রুটিং এজেন্সির মাধ্যমে শিখাকে সৌদিতে পাঠান। যাওয়ার প্রথম তিন মাসে মোট ৩৪ হাজার টাকা পাঠিয়েছিল শিখা।'

তামান্নার সঙ্গে গতকাল সোমবার ফোনে কথা হয়। তিনি শিখাকে বিদেশে পাঠানোর কথা স্বীকার করলেও রিক্রুটিং এজেন্সিটির নাম মনে নেই বলে দাবি করেন। তামান্না বলেন, 'আমি বিভিন্ন রিক্রুটিং এজেন্সির মার্কেটিং বিভাগে কাজ করি। কোন এজেন্সির মাধ্যমে শিখাকে পাঠিয়েছি, তা এখন মনে পড়ছে না।' শিখাকে দেশে ফিরিয়ে আনার ব্যবস্থা করা হচ্ছে বলে দাবি করেন তিনি।সমকাল


Space For Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement
সর্বশেষ
জনপ্রিয়