ঢাকা, ২০২২-০৬-২৬ | ১২ আষাঢ়,  ১৪২৯
সর্বশেষ: 
উবার ও লিফট ড্রাইভারদের বেতন বৃদ্ধি নিরাপত্তা নিয়ে শংকিত আমেরিকা -চিকেন ফার্মে বার্ড ফ্লু আতঙ্ক মেডিকেইড হারাচ্ছেন লাখো আমেরিকান পাল্টে যাচ্ছে রাজনীতির হিসাব-নিকাশ! অনুসন্ধানী সাংবাদিকতায় হস্তক্ষেপ না করার ঘোষণা যুক্তরাষ্ট্র বিচার ১২৩ বছর আগে গ্রেপ্তার গাছ, শেকলে বন্দি আজো ফ্রান্স প্রেসিডেন্টকে চড় মারার মাশুল কতটা? কুরআনের আয়াত বাতিলে ‘ফালতু’ রিট করায় আবেদনকারীকে জরিমানা আদালতের দেশে বিদ্যুৎ উৎপাদনে নতুন রেকর্ড ওয়াক্ত ও তারাবি নামাজের জামাতে সর্বোচ্চ ২০ জন বিদেশে মারা গেছে ২৭০০ বাংলাদেশি আর্থিক ক্ষতি মেনেই সাঙ্গ হলো বইমেলা সুন্দরী মডেলের অপহরণ চক্র ! মোটরসাইকেল উৎপাদনে বিপ্লবে দেশ যুক্তরাজ্যে করোনার আরও মারাত্মক ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত ৮ থেকে ১২ সপ্তাহ বিরতিতে অক্সফোর্ডের টিকা বেশি কার্যকর সবাই সপরিবারে নির্ভয়ে করোনা ভ্যাকসিন নিন: প্রধানমন্ত্রী শেষ রাতে দু’রাকাত নামাজ জীবন পরিবর্তন করে দিতে পারে নতুন করোনাভাইরাস আতঙ্কে ইউরোপ-আমেরিকার শেয়ারবাজারে ধস জুনের মধ্যে আসছে আরও ৬ কোটি করোনার টিকা বাড়িভাড়ায় নাভিশ্বাস, ফের বাড়ানোর পাঁয়তারা অমিতাভের পর অভিষেকও করোনা আক্রান্ত বিশ্ব ধরেই নিচ্ছে বাংলাদেশ জালিয়াতির দেশ : শাহরিয়ার কবির ইরাকে মর্গের পাশে রাত কাটছে বাংলাদেশিদের! বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার পরামর্শক বাংলাদেশের সেঁজুতি সাহা সাহেদর টাকা থাকত নাসির, ইন্ডিয়ান বাবু ও স্ত্রী সাদিয়ার কাছে ‘বাংলাদেশিদের ভোট দিন’ মানবতার সেবায় কমিউনিটি নেতৃবৃন্দ অনিশ্চিতায় ফেরদৌস খন্দকার কৃষ্ণাঙ্গ হত্যা থামছেই না বিক্ষোভ অব্যাহত গভর্নরের সিদ্ধান্ত মানছে না মেয়র অভিবাসীরা জিতলেন হারলেন ট্রাম্প করোনার ধাক্কা - মে মাসে রপ্তানি কমেছে ২০ হাজার কোটি টাকার পুলিশ সংস্কার বিল উঠলো মার্কিন কংগ্রেসে লাইফ সাপোর্টে থাকা নাসিমের জন্য মেডিকেল বোর্ড পুনর্গঠন আইসিইউ নিয়ে হাহাকার ঈদের ছুটিতে অনিরাপদ হয়ে উঠছে গ্রামগুলো ঘরে ঘরে ভুতুড়ে বিল, বিদ্যুৎ বিভাগ বলছে সমন্বয় হবে নিউইয়র্কে ‘ট্রাম্প ডেথ ক্লক’ নিউইয়র্কে জেবিবিএ’র পরিচালক ইকবালুর রশীদ লিটনের মৃত্যু নিজ আয়ে চলা শুরু করলো বাংলাদেশ স্যাটেলাইট কোম্পানি কবে খুলবে নিউইয়র্ক নিউইয়র্কে এবার নতুন ভাইরাসে শিশুরা আক্রান্ত

ক্ষমতায় এলে বিনামূল্যে লিঙ্গবর্ধক অস্ত্রোপচারের প্রতিশ্রুতি

ক্ষমতায় এলে বিনামূল্যে লিঙ্গবর্ধক অস্ত্রোপচারের প্রতিশ্রুতি

ভোটের আগে জনগণের মন জিততে হরেক রকম প্রতিশ্রুতি দেন প্রার্থীরা। কিন্তু এমন অদ্ভুত প্রতিশ্রুতির কথা আগে শুনেছেন? ব্রাজিলের সাও পাওলোয় জুজু ফেরারি নামক এক মডেল প্রার্থী হয়েছেন পার্লামেন্ট নির্বাচনে। আর তিনিই প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন, একবার ভোটে জিতলেই পুরুষদের লিঙ্গবর্ধক অস্ত্রোপচার বিনামূল্যে করানোর ব্যবস্থা করবেন তিনি।

ব্রাজিলের ওই মডেল নেটমাধ্যমে বেশ জনপ্রিয়। ইনস্টাগ্রামে তার ফলোয়ার সংখ্যার প্রায় ৪২ লক্ষ। জুজু জানিয়েছেন, লিঙ্গের দৈর্ঘ্য বৃদ্ধির এহেন অস্ত্রোপচারকে তিনি স্বাস্থ্য ব্যবস্থার অংশ হিসেবেই দেখেন।

স্থানীয় সংবাদমাধ্যমকে দেয়া একটি সাক্ষাৎকারে তিনি জানান, ইনস্টাগ্রামে বহু অনুরাগীই তাকে জানিয়েছেন, তারা এই অস্ত্রোপচার করাতে চান। কিন্তু অস্ত্রোপচারটি এতোই খরচ সাপেক্ষ যে করানো সম্ভব হয় না। যৌনস্বাস্থ্য নিয়ে সচেতনতা বৃদ্ধির পক্ষেও জোরালো সওয়াল করছেন জুজু। আনন্দবাজার

রোববার, ২৬ জুন ২০২২, ০২:২৬

‘এই বিপর্যয় মোকাবিলার সক্ষমতা তালেবানের নেই’
আফগানিস্তানে ভূমিকম্প

‘এই বিপর্যয় মোকাবিলার সক্ষমতা তালেবানের নেই’

 আহত অবস্থায় ক্লিনিকে নিয়ে আসা হয়েছে এক তরুণকে। শরীরে আঘাতের চিহ্ন, পাঁজরের হাড় ভাঙা। অসহ্য যন্ত্রণার মধ্যেও খোঁজ করছিলেন প্রিয় সন্তান ও পরিবারের সদস্যদের। একসময় তিনি চিকিৎসককে বললেন, পরিবারের সদস্যরা যদি বেঁচে না থাকেন, তাহলে তাঁরও বেঁচে থাকার কোনো দরকার নেই। প্রথম আলো

ক্লিনিকে ভর্তি আরেক শিশুও গুরুতর আহত। নিজের ছোট্ট শরীরের আঘাতের দিকে যেন খেয়াল নেই তার। ধ্বংসস্তূপের নিচে আটকা পড়া মা-বাবা ও ভাই-বোনকে সাহায্য করার জন্য আকুতি জানাচ্ছিল সে। হঠাৎ কেউ একজন বলে উঠলেন, তাঁরা কেউ বেঁচে নেই। শুনেই অচেতন হয়ে যায় শিশুটি।

এসব করুণ কাহিনি আফগানিস্তানের পূর্বাঞ্চলীয় পাকতিকা প্রদেশের ছোট শহর জিয়ানের একটি ক্লিনিকে ভর্তি হওয়া আহত ব্যক্তিদের। বুধবার ভোরে পাকতিকা ও দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলীয় খোস্ত প্রদেশে শক্তিশালী ভূমিকম্পের পর থেকেই সেখানে ভিড় করছেন বেঁচে ফেরা আহতরা। ওই ক্লিনিকের একজন কর্মীর সঙ্গে কথা হয়েছে বিবিসির। মুহাম্মদ গুল নাম তাঁর।

বৃহস্পতিবার মুহাম্মদ গুল বলেন, তাঁদের ক্লিনিকে শয্যা মাত্র পাঁচটি। তবে ভূমিকম্পে সব কক্ষ ধ্বংস হয়ে গেছে। এদিকে সকাল থেকে রোগী এসেছে ৫০০ জন। তাদের মধ্যে ২০০ জনের মৃত্যু হয়েছে। পাকতিকার প্রত্যন্ত এলাকা থেকে কয়েকজনকে একটি হেলিকপ্টারে করে শহরগুলোতে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়া হয়েছে। যাঁদের কোথাও যাওয়ার সুযোগ হয়নি, তাঁদের জন্য অস্থায়ী ক্লিনিক খুলে দুজন চিকিৎসক সেবা দেওয়ার চেষ্টা করছেন।

এদিকে যে জেনারেটরটি দিয়ে ক্লিনিকের জন্য বিদ্যুৎ উৎপাদন করা হচ্ছে, সেটির জ্বালানি তেলও ফুরিয়ে আসছে। আশপাশের প্রদেশগুলো থেকে সাহায্যের প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছিল। তবে এখনো তেমন কিছু হাতে পাননি বলে জানিয়েছেন মুহাম্মদ গুল। বলেন, ‘ক্লিনিকে আহত ব্যক্তিদের ভীড় বাড়ছে। অনেকেরই জরুরি চিকিৎসাসেবা প্রয়োজন। আমার মনে হয় না তাঁরা রাত পর্যন্ত বেঁচে থাকতে পারবেন।’

ইতিমধ্যে, আহত ব্যক্তিদের সংখ্যাও বেড়ে চলেছে। ভূমিকম্পটি এমন সব স্থানে আঘাত হেনেছে যেগুলো মূলত দরিদ্র পাহাড়ি এলাকা। সেখানকার বাড়িঘরগুলো দুর্বল, ভূমিকম্পের ঝাঁকুনি সয়ে টিকে থাকার মতো নয়। স্বাভাবিকভাবে ভূমিকম্পে শত শত বাড়িঘর ধসে পড়েছে। ভূমিকম্পের পাশাপাশি হয়েছে ভূমিধস।

সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকাগুলোর একটি জিয়ান। ভূমিকম্পের পর অনেক মানুষ এখনো বিধ্বস্ত বাড়িঘরের নিচে চাপা পড়ে রয়েছেন।

রোববার, ২৬ জুন ২০২২, ০২:২১

বিধ্বস্ত শহর সেভেরোদোনেৎস্ক রুশ নিয়ন্ত্রণে: ইউক্রেন

বিধ্বস্ত শহর সেভেরোদোনেৎস্ক রুশ নিয়ন্ত্রণে: ইউক্রেন

 

রাশিয়ার বাহিনী এখন পূর্ব ইউক্রেনের বিধ্বস্ত শহর সেভেরোদোনেৎস্কের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে বলে জানিয়েছেন এর মেয়র।  

ওলেক্সান্দার স্ত্রাইউক ইউক্রেনীয় টিভিকে বলেন, ‘রাশিয়ার সেনারা সেভেরোদোনেৎস্ক পুরোপুরি দখল করেছে। আমাদের সামরিক বাহিনী পিছিয়ে আরো প্রস্তুত অবস্থানে ফিরে গেছে। ’

রাশিয়ার সেনাদের কয়েক সপ্তাহের ভারী গোলাবর্ষণ সেভেরোদোনেৎস্কের বেশিরভাগ ধ্বংসস্তূপে পরিণত করেছে।

অনেক বেসামরিক নাগরিক বিশাল আজোত রাসায়নিক কারখানায় আশ্রয় নিচ্ছে। মেয়র স্ত্রাইউক বলেছেন, এখন শহর ছেড়ে বের হওয়ার একমাত্র রাস্তা রাশিয়ার দখলে থাকা অঞ্চলের মধ্য দিয়ে।

রাশিয়ার সেনাবাহিনীর মিত্র রুশপন্থী বিদ্রোহীরা বলেছে, তারা কাছের আরেক শহর লিসিচানস্কের কিছু অংশে ঢুকে পড়েছে। শহরটি সিভারস্কি দোনেৎস নদীর ওপারে সেভেরোদোনেৎস্কের মুখোমুখি। তবে ইউক্রেনের কর্মকর্তারা বিষয়টি নিশ্চিত করেননি।
একসময় লাখখানেক বাসিন্দার শহর সেভেরোদোনেৎস্কের পথে পথে রাস্তায় তীব্র লড়াই হয়েছে। এর বেশিরভাগ বাসিন্দা পালিয়ে গেছে।

সেভেরোদোনেৎস্ক শহরটি রাশিয়ার দখলে নেওয়ার অর্থ হল দেশটির বাহিনী এখন প্রায় সমস্ত লুহানস্ক অঞ্চল এবং প্রতিবেশি দোনেৎস্কের বেশিরভাগ নিয়ন্ত্রণ করছে। এ দুটি অঞ্চল মিলে দনবাস শিল্প এলাকা।  

শুক্রবার রাত এবং শনিবার রাশিয়া ইউক্রেনের উত্তর ও পশ্চিমের লক্ষ্যবস্তুতে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালায়। ইউক্রেনের সামরিক বাহিনী বলেছে, ওই হামলার মধ্যে ছিল প্রথমবারের মতো টিইউ-২২ বোমারু বিমান থেকে ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ। উত্তরে অবস্থিত রাশিয়ার মিত্র দেশ বেলারুশের ওপর দিয়ে উড়ে এসেছিল ওই বিমানগুলো।

ইউক্রেনের সামরিক বাহিনী বলেছে, কৃষ্ণ সাগরে থাকা রুশ জাহাজ থেকে ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্রও নিক্ষেপ করা হয়েছে। পশ্চিমের লভিভ অঞ্চল এবং উত্তর-পশ্চিম ইউক্রেনের জাইতোমিরে অবস্থিত সামরিক স্থাপনায় ক্ষেপণাস্ত্র হামলা হয়েছিল।

ইউক্রেন কর্তৃপক্ষ উত্তরে চেরনিহিভের কাছের গ্রাম দেসনায় ভারী রকেট হামলারও খবর দিয়েছে। সূত্র: বিবিসি

 

রোববার, ২৬ জুন ২০২২, ০২:১৯

ইরানকে ৪৩০ কোটি ডলার ক্ষতিপূরণ দিতে যুক্তরাষ্ট্রকে নির্দেশ

ইরানকে ৪৩০ কোটি ডলার ক্ষতিপূরণ দিতে যুক্তরাষ্ট্রকে নির্দেশ

ইরানের কয়েকজন পরমাণু বিজ্ঞানী হত্যার জন্য ইসরায়েলকে সহযোগিতা করায় মার্কিন প্রশাসন ও যুক্তরাষ্ট্রের কয়েকটি প্রতিষ্ঠানকে দোষী সাব্যস্ত করেছে ইরানের একটি আদালত। এজন্য ক্ষতিপূরণ হিসেবে ৪৩০ কোটি ডলার দিতে ওয়াশিংটনকে নির্দেশ দিয়েছে ইরানের ওই আদালত।

ইরানের তিন শহীদ পরমাণু বিজ্ঞানীর পরিবারের সদস্যরা, একজন আহত পরমাণু বিজ্ঞানী এবং শহীদ তিন পরমাণু বিজ্ঞানীর স্ত্রীরা মার্কিন প্রশাসন ও যুক্তরাষ্ট্রের কয়েকটি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে তেহরানের আদালতে মামলা করেন। ইসরায়েল এসব হত্যাকাণ্ড বাস্তবায়ন করলেও যুক্তরাষ্ট্র তাতে সক্রিয় সহযোগিতা দেয়। হত্যাকাণ্ডের ফলে পরমাণু বিজ্ঞানীদের পরিবারের সদস্যরা শারীরিক, মানসিক ও আর্থিকভাবে মারাত্মক ক্ষতির শিকার হন। এসব বিজ্ঞানীর পরিবারের সদস্যদের অনেকে হামলায় সরাসরি শারীরিকভাবে আহত হয়েছেন।

মামলার রায়ে আদালত বলেছে, আন্তর্জাতিক দায়-দায়িত্ব ও নিয়ম-কানুনের লঙ্ঘন এবং আন্তর্জাতিক পর্যায়ে ইসরায়েলের সন্ত্রাসবাদের প্রতি মার্কিন সমর্থনের উদাহরণ বন্ধ করতে বাদী পক্ষ এই মামলা করেছে।

মামলায় ৩৭ জন মার্কিন নাগরিককে দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছে যার মধ্যে যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা ও ডোনাল্ড ট্রাম্প রয়েছেন। এছাড়া, সাবেক মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও, সাবেক ইরান বিষয়ক মার্কিন দূত ব্রায়ান হুক এবং সাবেক প্রতিরক্ষামন্ত্রী অ্যাশ্টোন কার্টার রয়েছেন।

মামলার রায়ে বলা হয়েছে, ইরানের পরমাণু বিজ্ঞানীদের হত্যার জন্য ইসরায়েলের জড়িত থাকার প্রমাণ নিশ্চিত হয়েছে এবং হত্যাকাণ্ড বাস্তবায়নে যুক্তরাষ্ট্র ইসরায়েলকে অর্থনৈতিক ও সামরিক সহযোগিতা দিয়েছে। একটি সন্ত্রাসবাদী রাষ্ট্র হিসেবে ইসরায়েল প্রতিষ্ঠায় যুক্তরাষ্ট্রের কার্যকর ভূমিকা রয়েছে। এছাড়া, মার্কিন কংগ্রেস ইসরায়েলের সমর্থনে বেশ কয়েকটি আইন পাস করেছে।

গত কয়েক বছরে ইরানের পরমাণু বিজ্ঞানীরা ইসরায়েল ও পশ্চিমা দেশগুলোর গুপ্তচরদের হামলার লক্ষ্যবস্তুতে পরিণত হয়েছেন। ২০১০ থেকে ২০১২ সালের মধ্যে ইরানের চার পরমাণু বিজ্ঞানী মাসুদ আলী মোহাম্মাদি, মাজিদ শাহরিয়ারি, দারিউশ রেজায়িনেজাদ এবং আহমাদি রোশান গুপ্তহত্যার শিকার হন। এছাড়া, পরমাণু বিজ্ঞানী ফেরেইদুন আব্বাসি সন্ত্রাসী হামলায় আহত হন। গুপ্তহত্যার ধারাবাহিকতায় ২০২০ সালের ২৭ নভেম্বর ইরানের আরেক পরমাণু বিজ্ঞানী মোহসেন ফাখরিজাদে শহীদ হন। এই হত্যাকাণ্ডের পর ইরানি কর্মকর্তারা বলেছিলেন, ইসরায়েল মূলত যুক্তরাষ্ট্রের গুপ্তচর হিসেবে কাজ করেছে এবং খ্যাতিমান পরমাণু বিজ্ঞানীকে হত্যা করেছে। সর্বশেষ সন্ত্রাসী হামলায় গত ২২ মে ইরানের ইসলামি বিপ্লবী গার্ড বাহিনী বা আইআরজিসির কর্নেল হাসান খোদায়ি শহীদ হন। 

শুক্রবার, ২৪ জুন ২০২২, ০৩:২৮

ইউক্রেনকে ইউরোপীয় ইউনিয়নের ‘সদস্যপ্রার্থী দেশ’ হিসেবে অনুমোদন

ইউক্রেনকে ইউরোপীয় ইউনিয়নের ‘সদস্যপ্রার্থী দেশ’ হিসেবে অনুমোদন

 ইউরোপীয় ইউনিয়ন ইউক্রেনকে ২৭ সদস্য বিশিষ্ট ইউরোপীয় ব্লকের ‘সদস্যপ্রার্থী দেশ’ হিসেবে অনুমোদন দিয়েছে। এতে ইউরোপীয় ইউনিয়নের সদস্য হওয়ার পথে আরও একধাপ এগোল ইউক্রেন।

আল জাজিরার খবরে বলা হয়েছে, গতমাসে ইউরোপীয় ইউনিয়নের সদস্য হতে আবেদন করে ইউক্রেন। বৃহস্পতিবার ব্রাসেলসে এক বৈঠকে ইউরোপীয় ইউনিয়নের নেতারা ইউক্রেনকে ‘সদস্যপ্রার্থী দেশ’ হিসেবে অনুমোদন দিয়েছে।  এর আগে গত ১৭ জুন ইউরোপীয় কমিশন ইউক্রেনকে সদস্য করার সুপারিশ করে।
রাশিয়ার হামলার ৪ মাস পর ইউরোপীয় ইউনিয়ন ইউক্রেনকে সদস্যপ্রার্থী দেশের অনুমোদন দিল। ইউক্রেনে আক্রমণ রাশিয়া ‘যুদ্ধ’ না বলে ‘বিশেষ অভিযান’ হিসেবে উল্লেখ করছে।

আল জাজিরার খবর বলছে, ইউক্রেনের ইইউতে প্রবেশ প্রক্রিয়া দীর্ঘ হতে পারে। ইউরোপীয় ইউনিয়নের সদস্যপ্রার্থী দেশের তালিকায় রয়েছে উত্তর মেসিডোনিয়া, আলবেনিয়া, মন্টেনিগরো, সার্বিয়া এবং তুরস্ক। তুরস্ক ১৯৯৯ সালে ইউরোপীয় ইউনিয়নের সদস্যপ্রার্থী দেশের মর্যাদা লাভ করে এবং উত্তর মেসিডেনিয়া করে ২০০৫ সালে। কিন্তু দেশ দুটি এখনো ইইউর সদস্য পদ পায়নি।

ইউক্রেনকে সদস্যপ্রার্থী দেশ হিসেবে অনুমোদন দেওয়ার পর ইউরোপীয় কমিশনের প্রেসিডেন্ট ভন দার লিয়েন এক টুইট বার্তায় বলেন, ইউরোপের জন্য আজ ‘শুভ দিন’।

শুক্রবার, ২৪ জুন ২০২২, ০৩:১১

আফগানিস্তানে উদ্ধারকারী দল পাঠাতে চায় তুরস্ক

আফগানিস্তানে উদ্ধারকারী দল পাঠাতে চায় তুরস্ক

আফগানিস্তানে ভয়াবহ ভূমিকম্পে ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত হয়ে আটকে পড়া বাসিন্দাদের উদ্ধারে হিমশিম খাচ্ছে দেশটির কর্তৃপক্ষ। এক্ষেত্রে উদ্ধারকারী দল পাঠিয়ে সহযোগিতা করতে চায় তুরস্ক। এদিকে প্রতিবেশী দেশের এমন বিপর্যয়ে জরুরি মানবিক সহায়তা পাঠাতে চাচ্ছে চীন। খবর আল জাজিরার। সময় অনলাইন

গত ২০ বছরের মধ্যে সবচেয়ে ভয়াবহ ভূমিকম্পের কবলে পড়েছে যুদ্ধবিধ্বস্ত আফগানিস্তান। বুধবারের (২২ জুন) ৫.৯ মাত্রার ভূমিকম্পের আঘাতে দেশটির দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলীয় পাকটিকা ও খোস্ত প্রদেশে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। শত শত ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত হয়েছে। এতে ইতোমধ্যে ১ হাজারের বেশি মানুষ মারা গেছে। আহত হয়েছে আরও অন্তত দেড় হাজার।

ভূমিকম্প সৃষ্ট ধ্বংসযজ্ঞের মধ্যে উদ্ধার অভিযান পরিচালনা ক্ষমতাসীন তালেবানের জন্য বড় পরীক্ষা হয়ে দেখা দিয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে। গত বছরের আগস্টে আফগানিস্তানের ক্ষমতার দখল নেয় সাবেক বিদ্রোহী গোষ্ঠীটি। বিশ্বব্যাংক ও যুক্তরাষ্ট্রে রিজার্ভের অর্থ আটকে থাকা ও নিয়মিত বৈদেশিক সাহায্য বন্ধ হয়ে যাওয়ায় তালেবান সরকার চরম অর্থনৈতিক সংকটের মুখে রয়েছে।

এমন পরিস্থিতিতে ভূমিকম্প পরবর্তী পরিস্থিতি মোকাবিলায় আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সহযোগিতা চেয়েছে তালেবান কর্তৃপক্ষ। সরকারের শীর্ষ কর্মকর্তা আনাস হাক্কানি বলেছেন, সরকার তার নিজস্ব সক্ষমতায় যতটুকু সম্ভব ততটুকু নিয়েই কাজ করছে। সেই সঙ্গে আমরা আশা করি, আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় ও ত্রাণ সহায়তা সংস্থাগুলো আমাদের জনগণের এ বিপদের সময়ে সহযোগিতার হাত নিয়ে এগিয়ে আসবে।  

ইতোমধ্যে সহযোগিতার প্রস্তাব দিয়ে জাতিসংঘ ও ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ)। জাতিসংঘ বলেছে, আফগানিস্তানে উদ্ধার অভিযান পরিচালনা করার মতো সক্ষমতা তাদের নেই। তবে চাইলে এক্ষেত্রে সহযোগিতা দিতে প্রস্তুত রয়েছে তুরস্ক। দেশটি আফগান সরকারের অনুমতির অপেক্ষায় রয়েছে।

আফগানিস্তানে জাতিসংঘের দূত রমিজ আলাকবারোভ বলেন, আমরা ইতোমধ্যে এ বিষয়ে তুর্কি দূতাবাসের সঙ্গে কথা বলেছি। তারা আনুষ্ঠানিক অনুমতির জন্য অপেক্ষা করছেন।

এদিকে আফগানিস্তানের চরম এ বিপদে মানবিক সহায়তা পাঠাতে চেয়েছে প্রতিবেশী দেশ চীন। বুধবার নিয়মিত এক সংবাদ সম্মেলনে চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ওয়াং ওয়েবিন আফগানিস্তানে ভূমিকম্পে হতাহতে সমবেদনা প্রকাশ করেন।

ওয়েবিন বলেন, আফগানিস্তান চীনের প্রতিবেশি বন্ধু এবং আফগানের পক্ষ থেকে চাহিদা মোতাবেক জরুরি মানবিক সহায়তা দিতে প্রস্তুত বেইজিং। ভূমিকম্পে আফগানিস্তানে থাকা কোনো চীনের নাগরিক এখন পর্যন্ত হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি বলে নিশ্চিত করেছেন চীনা মুখপাত্র।

২০০২ সালের পর আফগানিস্তানের সবচেয়ে প্রাণঘাতী ভূমিকম্প হয়েছে বুধবার ভোরে। মার্কিন ভূতাত্ত্বিক জরিপ সংস্থা (ইউএসজিএস) জানিয়েছে, ভূমিকম্পটির উৎপত্তি হয়েছে পাকিস্তান সীমান্তবর্তী দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলীয় প্রদেশ খোস্ত থেকে প্রায় ৪৪ কিলোমিটার দূরে। বিভিন্ন স্থানে ভবন ধসে পড়েছে। ধ্বংসস্তূপে আটকে পড়াদের উদ্ধার কাজে সহায়তায় নেমেছে আফগান প্রশাসন। এ ঘটনায় দেশজুড়ে শোক বইছে।

বৃহস্পতিবার, ২৩ জুন ২০২২, ০৩:১৫

রাশিয়ার আক্রমণের জন্য প্রস্তুতি নিয়েছে ফিনল্যান্ড: সেনাপ্রধান

রাশিয়ার আক্রমণের জন্য প্রস্তুতি নিয়েছে ফিনল্যান্ড: সেনাপ্রধান

ফিনল্যান্ডের সেনাবাহিনীর প্রধান জেনারেল তিমো কেভিনেন বলেছেন, রাশিয়ার আক্রমণের কথা মাথায় রেখে প্রস্তুতি নিয়েছে ফিনল্যান্ড।

তিনি আরও বলেছেন, যদি রাশিয়া ফিনল্যান্ডে হামলা করে তাহলে তীব্র প্রতিরোধ গড়ে তোলা হবে।

একটি সাক্ষাৎকারে ফিনিশ সেনাপ্রধান আরও বলেছেন, ফিনল্যান্ডের নাগরিকরা যুদ্ধ করতে প্রস্তুত। আমরা যথেষ্ঠ পরিমাণ অস্ত্র মজুদ করেছি।

তিনি আরও বলেন, সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ প্রতিরক্ষা হলো একজনের কান, যেটি ইউক্রেন যুদ্ধে প্রমাণিত হয়েছে। ফিনল্যান্ড দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর উচ্চতর সামরিক প্রস্তুতি নিয়েছে।

তিনি আরও বলেন, আমরা ধারাক্রমে আমাদের সামরিক শক্তি বৃদ্ধি করেছি। যুদ্ধাস্ত্র, সেনা এবং বিমান বাহিনীর শক্তি বৃদ্ধি করেছি এরকম যুদ্ধের কথা মাথায় রেখে, যেটি এখন ইউক্রেনে হচ্ছে।

ফিনিশ সেনাপ্রধান দাবি করেছেন, ইউক্রেনে রুশ সেনারা সাফল্য পাচ্ছে না। ইউক্রেনের বিরুদ্ধে তাদের তুমুল লড়াই করতে হচ্ছে। ফিনল্যান্ডেও যদি রাশিয়া আক্রমণ করে তাহলে একই রকম অবস্থা হবে।

তিনি বলেন, রুশদের জন্য ইউক্রেকে হজম করার বিষয়টি যেমন কঠিন হচ্ছে ফিনল্যান্ডেও সেই একই রকম হবে।

সূত্র: দ্য গার্ডিয়ান 

বৃহস্পতিবার, ২৩ জুন ২০২২, ০৩:০৯

বাড়ছে খাদ্যের দাম, যুক্তরাজ্যে মুদ্রাস্ফীতির রেকর্ড

বাড়ছে খাদ্যের দাম, যুক্তরাজ্যে মুদ্রাস্ফীতির রেকর্ড

 কয়েক মাস ধরেই খাবারের দাম বাড়তে থাকায় ৪০ বছরের রেকর্ড ভেঙেছে যুক্তরাজ্যের মুদ্রাস্ফীতি। দেশটি গেল মাসে (মে) মুদ্রাস্ফীতি ছিল ৯.১ শতাংশ।

১৯৮২ সালের মার্চের পর এবারই প্রথম যুক্তরাজ্যের মুদ্রাস্ফীতি এতো খারাপ পর্যায়ে পৌঁছেছে।
মার্কিন ডলারের বিপরীতে ব্রিটিশ স্টার্লিংয়ের মানও কমছে তরতরিয়ে। এই ঊচ্চ মুদ্রাস্ফীতিকে অনেক বিনিয়োগকারই ঝুঁকিপূর্ণ মনে করছেন। তারা বলছেন, ঊচ্চ দামে জ্বালানি আমদানি ও ব্রেক্সিটের চলমান প্রক্রিয়ায় ইউরোপীয় ইউনিয়নের সাথে ব্যবসায়িক কার্যক্রমকে আরও ঝুঁকিপূর্ণ করে তুলছে।

গবেষণা প্রতিষ্ঠান রেজ্যুলেশন ফাউন্ডেশনের জ্যেষ্ঠ অর্থনীতিবিদ জ্যাক লেসলি বলেন, ‘অর্থনীতির বর্তমান হালচাল খুবই অস্পষ্ট, কেউ জানে না এই মুদ্রাস্ফীতি কোথায় গিয়ে ঠেকবে, আর কতোদিন এটা স্থায়ী হবে।’

ইংল্যান্ডের কেন্দ্রীয় ব্যাংক জানিয়েছে চলতি বছরের অক্টোবরে এই মুদ্রাস্ফীতির হার ১১ শতাংশে পৌঁছাতে পারে। তাই জ্বালানি ও গৃহস্থালি খরচ আরও বাড়তে পারে।


সূত্র: আল জাজিরা

বৃহস্পতিবার, ২৩ জুন ২০২২, ০৩:০৬

পুতিনের পারমাণবিক ব্রিফকেস বহনকারী নিজ ফ্ল্যাটে গুলিবিদ্ধ

পুতিনের পারমাণবিক ব্রিফকেস বহনকারী নিজ ফ্ল্যাটে গুলিবিদ্ধ

রাশিয়ান প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের  পারমাণবিক ব্রিফকেস বহনকারী সাবেক কেজিবি কর্মকর্তা কর্নেল (অবসরপ্রাপ্ত) ভাদিম জিমিনকে তার নিজ ফ্ল্যাটে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় পাওয়া গেছে।

রাশিয়ার রাজধানী মস্কোর কাছে অবস্থিত ওই ফ্ল্যাটে স্থানীয় সময় সোমবার তাকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় পাওয়া যায়। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম ডেইলি মিরর ও ডেইলি সান বুধবার এক প্রতিবেদনে তথ্য জানিয়েছে।  

গুরুতর অবস্থায় জিমিনকে স্থানীয় হাসপাতালের আইসিইউতে ভর্তি করানো হয়েছে বলে স্থানীয় সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

রাশিয়ার পরমাণু অস্ত্রসম্ভারের নিয়ন্ত্রণ যে ব্রিফকেস রয়েছে, সেটি বহনের দায়িত্বে ছিলেন ফেডারেল সিকিউরিটি সার্ভিসের অবসরপ্রাপ্ত কর্নেল জিমিন। ওই ব্রিফকেস সবসময় রাশিয়ার প্রেসিডেন্টের সঙ্গেই থাকে।

জিমিন সাবেক রুশ প্রেসিডেন্ট বরিস ইয়েলৎসিনের সময়ও এই ভূমিকা পালন করেছিলেন বলে ডেইলি মিরর জানিয়েছে।

বরিস ইয়েলৎসিনের উত্তরসূরি ভ্লাদিমির পুতিনের অধীনেও একই দায়িত্ব অব্যাহত রেখেন জিমিন।  তবে সাবেক কেজিবি গুপ্তচর হিসেবে তার সুনির্দিষ্ট ভূমিকা অস্পষ্ট।

ঘটনার সময় ক্রাসনোগোর্কের ওই ফ্ল্যাটে ৫৩ বছরের জিমিনের স্ত্রী ছিলেন না। স্বাস্থ্য পরিষেবার সঙ্গে যুক্ত ওই মহিলা এই মুহূর্তে ইউক্রেনে রুশ সেনাবাহিনীর সঙ্গে রয়েছেন। ফ্ল্যাটের বাথরুমে ছিলেন জিমিনের ভাই। তিনিই রক্তাক্ত অবস্থায় জিমিনকে পড়ে থাকতে দেখেন। তাঁর মাথায় বুলেটের ক্ষতচিহ্ন ছিল। জিমিনের পাশেই পড়েছিল একটি রাবার বুলেট ছোড়ার পিস্তল।যুগান্তর

এমন সময় এই গুলির ঘটনা ঘটল, যখন ঘুস নেওয়ার অভিযোগে তদন্তের মুখোমুখি হয়েছেন জিমিন। কাস্টমস সার্ভিসে যোগদানের পর এই অভিযোগ ওঠে তার বিরুদ্ধে। তিনি ওই ফৌজদারি মামলায় গৃহবন্দী অবস্থায় ছিলেন। যদিও নিজের বিরুদ্ধে আনা সব অভিযোগই অস্বীকার করেছেন জিমিন।  তবে কারা তাকে গুলি করল তা জানা যায়নি।

বৃহস্পতিবার, ২৩ জুন ২০২২, ০৩:০৪

ইউক্রেনের হাতে জার্মানির অত্যাধুনিক অস্ত্র

ইউক্রেনের হাতে জার্মানির অত্যাধুনিক অস্ত্র

জার্মানির শক্তিশালী যুদ্ধাস্ত্র পৌঁছালো ইউক্রেনে। এই অস্ত্রের সাহায্যে ৪০ কিলোমিটার দূরের লক্ষ্যবস্তু ধ্বংস করতে পারবে ইউক্রেন। এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে ডয়েচে ভেলে।

বৃহস্পতিবার, ২৩ জুন ২০২২, ০২:৪৮

পশ্চিমা যুদ্ধবিমানে যেসব চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি ইউক্রেন

পশ্চিমা যুদ্ধবিমানে যেসব চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি ইউক্রেন

পশ্চিমা উন্নত অস্ত্র নিয়ে সশস্ত্র বাহিনীকে আধুনিকীকরণের ইচ্ছার বিষয়টি নিয়ে কখনোই রাখঢাক রাখেনি ইউক্রেন। বারবারই জানিয়েছে তারা পশ্চিমা অস্ত্র নিয়ে নিজের পুরোনো ভাণ্ডারকে আরও সমৃদ্ধ করতে চায়।

মিগ-২৯, সু-২৭ এবং সু-২৫-এর মতো সোভিয়েত যুগের বিমানের বদলে আধুনিক পশ্চিমা যুদ্ধ বিমানও নিজেদের সামরিক বাহিনীতে যোগ করতে চায় কিয়েভ।

যদিও ইউক্রেনের পাইলটরা রুশ বিমানবাহিনীর বিরুদ্ধে উল্লেখযোগ্য সাফল্য অর্জন করেছে। তবে পশ্চিমা বিমানে তারা আরও সক্ষমতা অর্জন করবে।

ইউক্রেনের  যুদ্ধবিমান মিগ-২৯ (ফুলক্রাম) পুরানো হয়ে যাচ্ছে। এর যন্ত্রাংশ দুষ্প্রাপ্য এবং এফ-১৬ (ভাইপার) এর সঙ্গে তাল মেলাতে পারে না এই যুদ্ধ বিমান।

ফুলক্রামে 'ফায়ার-এন্ড-ফোরগেট' সক্রিয়-রাডার হোমিং ক্ষেপণাস্ত্রের অভাব রয়েছে। অন্যদিকে রাশিয়ান এসইউ৩৫এস 'বিয়ন্ড ভিজ্যুয়াল রেঞ্জ' লড়াইয়ের জন্য আর্দশ।

সেই তুলনায়, এফ-১৬এস বিভিআরে ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবস্থা ও আরও কার্যকর রাডার রয়েছে। আকাশ থেকে স্থল আক্রমণেও তারা সমানভাবে সক্ষম।

এখন প্রশ্ন উঠতে পারে প্রশ্ন উঠতে পারে পশ্চিমারা ইউক্রেনকে সাহায্য করছেই, তাহলে সমস্যা কোথায়? সমস্যাটা আসলে সময়ের।

এসব বিমান চালানোর ব্যাপারে একজন মার্কিন পাইলটকে প্রশিক্ষণ দিতে প্রায় চার থেকে ছয় মাস সময় লাগে।

ইউক্রেনীয় পাইলটদের যেকোনো প্রশিক্ষণ দেশের বাইরে নিতে হবে। যুদ্ধরত অবস্থায় দেশের বাইরে যাওয়া মানে দক্ষ জনবলকে যুদ্ধের ময়দান থেকে সরিয়ে দেওয়া।

তারপর আসে এসব আধুনিক বিমান সরবরাহের প্রশ্ন। কোনো ন্যাটো দেশ যুদ্ধবিমান পাঠাতে পারে।  কিন্তু তারপরে সেই বিমানগুলোকে ঠিকমতো কাজে লাগানোও জরুরি। এটা প্রাথমিক প্রতিরক্ষা নীতির মধ্যেই পড়ে।

এতে সন্দেহ নেই যে ইউক্রেন– স্থল এবং আকাশ উভয় ক্ষেত্রেই পশ্চিমা সরবরাহ করা অস্ত্র কাজে লাগাতে পারবে।  তবে এর জন্য সময়, পরিকল্পনা এবং সংস্থানও জরুরি।  সূত্র: বিবিসি

সোমবার, ২০ জুন ২০২২, ০২:১৫

রাশিয়ার সঙ্গে আগস্টে আলোচনায় বসতে চায় ইউক্রেন

রাশিয়ার সঙ্গে আগস্টে আলোচনায় বসতে চায় ইউক্রেন

 

আগামী আগস্টে রাশিয়ার সঙ্গে ফের আলোচনায় বসার আগ্রহ প্রকাশ করেছে ইউক্রেন। পূর্ব ইউক্রেনে রাশিয়ার দখলদারিত্বের মধ্যেই আলোচনায় বসার কথা জানাল কিয়েভ। ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি জানিয়েছেন, আগামী পহেলা জুলাই থেকে ইউক্রেনে আসতে রুশ নাগরিকদের ভিসা লাগবে।
 

আগস্টেই ফের আলোচনা শুরু!

কিয়েভের প্রধান মধ্যস্থতাকারী ডেভিড আরাকহামিয়া মার্কিন সংবাদ মাধ্যম ভয়েস অব আমেরিকাকে দেওয়া সাক্ষাত্কারে বলেছেন, আগস্টের শেষ দিকে রাশিয়ার সঙ্গে আলোচনায় বসতে পারে ইউক্রেন। গত মার্চের শেষ দিকে আলোচনা স্থগিত করা হয়। আলোচনা বন্ধ হওয়ার জন্য একে অপরের ওপর দোষ চাপায়। ইউক্রেন তুরস্কে আলোচনায় বসার কথা জানালেও রাশিয়া সম্মতি দেয়নি। এদিকে ইজিয়াম শহরের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে রুশ বাহিনী এবং ইউক্রেন সেনাদের মধ্যে লড়াই অব্যাহত রয়েছে। এদিকে যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক এক কূটনীতিককে বিপুল পরিমাণ মাদক পাচারের দায়ে ১৪ বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন রাশিয়ার একটি আদালত। মার্ক ফোগেল এক সময়ে মস্কোর মার্কিন দূতাবাসে কাজ করতেন। তবে গ্রেফতার হওয়ার সময়ে তিনি সেখানকার এক স্কুলে শিক্ষকতা করতেন। মার্কিন বাস্কেটবল তারকা ব্রিটনি গ্রিনারের বিরুদ্ধে গাঁজা সংক্রান্ত যে মামলার শুনানি চলছে সেই একই বিচারিক ক্ষেত্রে ফোগেলকে সাজা দেওয়া হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের অনেক এলাকায় গাঁজা বৈধ হলেও রাশিয়ায় এটি এখনো অবৈধ।

ভিসা লাগবে রুশদের

গত ফেব্রুয়ারিতে ইউক্রেনের ওপরে রাশিয়া হামলা করার পর কেটে গিয়েছে প্রায় চার মাস। দুই প্রতিবেশী দেশের মধ্যে সম্পর্ক একেবারে তলানিতে, তা বলাই বাহুল্য। এই পরিস্থিতিতে প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি ঘোষণা করেছেন, এবার থেকে ইউক্রেনে যেতে ইচ্ছুক রুশ নাগরিকদের ভিসা দেওয়া হবে। আগামী পহেলা জুলাই থেকে ভিসা ছাড়া কোনো রুশ নাগরিক ঢুকতে পারবেন না সে দেশে। শিগ্গিরই এই সংক্রান্ত নিয়ম চালু হতে চলেছে। একটি টেলিগ্রাম পোস্টে জেলেনস্কি জানিয়েছেন, ক্যাবিনেটে পাশ হয়ে গেলেই লাগু হবে এই নিয়ম। দেশের সার্বভৌমত্ব, সুরক্ষা ও আঞ্চলিক ঐক্য রক্ষা করতেই এই পরিকল্পনা বলে জানান তিনি। এই সিদ্ধান্তকে প্রতীকী বলেই মনে করছে ওয়াকিবহাল মহল। কেননা যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর থেকেই দুই দেশের সীমান্ত সরকারিভাবে বন্ধ করে রাখা হয়েছে। ফলে ভিসা প্রবর্তন করলেও বর্তমান পরিস্থিতির খুব বেশি কিছু পরিবর্তন হবে না।

রাশিয়ার বিরুদ্ধে বিশ্বকে দুর্ভিক্ষের ঝুঁকিতে ফেলার অভিযোগ করেছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ)। গতকাল শনিবার ইউরোপীয় ইউনিয়নের পররাষ্ট্রনীতি-বিষয়ক প্রধান জোসেফ বোরেল এই অভিযোগ করেন। জোসেফ বোরেল বলেন, ইউক্রেনের খাদ্যশস্য পরিবহন ও রপ্তানিতে বিধিনিষেধ আরোপের মাধ্যমে বিশ্বকে দুর্ভিক্ষের ঝুঁকিতে ফেলছে রাশিয়া। কাল সোমবার লুক্সেমবার্গে ইউরোপীয় ইউনিয়নের পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের আলোচনায় খাদ্য নিরাপত্তার হুমকি এবং ইউক্রেন ইস্যুতে মস্কোর ওপর আরোপিত পশ্চিমা নিষেধাজ্ঞা নিয়ে আলোচনার কথা রয়েছে।—বিবিসি, রয়টার্স ও সিএনএন

 

রোববার, ১৯ জুন ২০২২, ০৪:০৬

করাচীতে বিনা পয়সায় গাড়ি মেরামত করে দেবে পুলিশ

করাচীতে বিনা পয়সায় গাড়ি মেরামত করে দেবে পুলিশ

বর্ষাকালে গাড়ির ইঞ্জিন বেশি বিগড়ায়, ফেঁসে যাওয়া গাড়ির কারণে রাস্তায় জ্যাম লেগে যায়। তাই করাচীর ট্রাফিক পুলিশ যানচলাচল স্বাভাবিক রাখতে নাগরিকদের গাড়ি মেরামতের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। স্টার্ট আপ পাকিস্তান

পাকিস্তানে বর্ষা শুরু হয়ে গেছে। এই মৌসুমে কোথাও যাওয়ার থাকলেও একান্ত জরুরি না হলে কেউ বের হন না। ট্র্যাফিক জ্যাম তো আছেই, আর বৃষ্টিতে গাড়ির এটা ওটা নষ্ট হওয়ার ঝঞ্ঝাট এই মৌসুমে আকছারই ঘটে থাকে।

পুলিশের ডেপুটি ইন্সপেক্টর জেনারেল আহমাদ নওয়াজ তাদের এ উদ্যোগ সম্পর্কে সংবাদ সম্মেলন করেছেন। তিনি জানিয়েছেন, গাড়ি মেরামতের আধুুিনক সব যন্ত্রপাতি নিয়ে ২৬টি গাড়ি পুরো নগরীতে মজুত থাকবে। যেখানে প্রয়োজন, সেখানে পৌঁছে সেবা দেবে এই ২৬ টিম।

এরই মধ্যে গাড়িগুলো হাইওয়ে ও বিভিন্ন এলাকায় অবস্থান নিয়েছে। খুব ধরনের গড়বড় না হলে টায়ার পাংচার থেকে শুরু করে গাড়ির সাধারণ যে কোনো সমস্যার সমাধান দেবে পুলিশের এই স্পেশাল টিম। পাশাপাশি কারো গাড়ির তেল ফুরিয়ে গেলে তেলের ব্যবস্থাও করবে করাচী পুলিশ।

রোববার, ১৯ জুন ২০২২, ০৪:০২

রোববার বাবা দিবস

রোববার বাবা দিবস

এই রোববার (১৯ জুন) বাবা দিবস। বিশ্বব্যাপী বাবা দিবস পালিত হবে এদিন। পশ্চিমা দেশগুলোতে এই দিবস পালন হয় বেশ ঘটা করে। বাবা দিবসে সন্তানরা উপহার কিনে বাবাকে শুভেচ্ছা জানান। অনেক পরিবারে অনুষ্ঠানের আমেজ বিরাজমান থাকে। কেউবা চলে যান রেষ্টুরেন্টে, সিনেমা বা দর্শনীয় স্থানে। নিউইয়র্ক শহরে বাংলাদেশিরা এই দিবসে পারিবার-পরিজন নিয়ে ঘুরতে বেরিয়ে যাবে। এই বাবা দিবসে আজকাল পত্রিকার পক্ষ থেকে সকল বাবাদের শুভেচ্ছা জানানো হচ্ছে।
উল্লেখ্য, বাবা দিবস উদযাপনে অনেক ব্যস্ত থাকলেও ভাগ্য বিড়ম্বিত বাবাও আছেন আমাদের কমিউনিটিতে। তাদের খোঁজ-খবর নেন না সন্তানরা। নিঃসঙ্গ ভাবা একা থাকেন। আবার এমন বাবা আছেন, নিজের সন্তানদের খোঁজ-খবর নেন না। এমন বাবা’র দুঃখ-হাহাকার আছে, আবার বাবা পাশে নেই বলে সন্তানদেরও অবর্ণনীয় যাতনা আছে।

শনিবার, ১৮ জুন ২০২২, ০২:২৫

ভারতে মুসলিম বিদ্বেষী বুলডোজার নীতি!

ভারতে মুসলিম বিদ্বেষী বুলডোজার নীতি!

সুমাইয়া ফাতিমার বয়স ১৯ বছর। বাড়ি ভারতের উত্তর প্রদেশের প্রয়াগরাজে (এলাহাবাদ)। সুমাইয়ারা চার ভাই-বোন। মা-বাবা আর ভাই-বোনসহ সেখানে দোতলা একটি বাড়িতে সুখেই ছিল সুমাইয়াদের পরিবার। কিন্তু গত রোববার হঠাৎ করে পরিবারটির ওপর চরম দুর্ভোগ নেমে আসে। ওই দিন সরকারি বুলডোজার এসে ভেঙে দেয় তাঁদের সুখের আবাস।

শনিবার, ১৮ জুন ২০২২, ০১:৫২

এক বছরে সুইস ব্যাংকে বাংলাদেশিদের আরো ৩ হাজার কোটি টাকা !

এক বছরে সুইস ব্যাংকে বাংলাদেশিদের আরো ৩ হাজার কোটি টাকা !

এক বছরের ব্যবধানে সুইস ব্যাংকে বাংলাদেশিদের টাকা বেড়েছে। যার পরিমাণ প্রায় তিন হাজার কোটি টাকা। এর আগে এক বছরে সুইজারল্যান্ডের ব্যাংকে এত টাকা রাখার নজির নেই বাংলাদেশিদের।

শনিবার, ১৮ জুন ২০২২, ০১:৫০

পারমাণবিক অস্ত্র মজুদে ভারত-ইসরাইলকে ছাড়িয়েছে পাকিস্তান

পারমাণবিক অস্ত্র মজুদে ভারত-ইসরাইলকে ছাড়িয়েছে পাকিস্তান

১৩ জুন স্টকহোম ইন্টারন্যাশনাল পিস রিসার্চ ইনস্টিটিউটের (এসআইপিআরআই) প্রকাশিত একটি প্রতিবেদনে দেখা যাচ্ছে, পাকিস্তান তাদের পারমানবিক অস্ত্র বৃদ্ধি করছে। তথ্য অনুযায়ী, পাকিস্তানের কাছে ভারত ও ইসরাইলের চেয়ে বেশি পারমাণবিক অস্ত্র মজুদ রয়েছে। 

মজুদকৃত অস্ত্রের মধ্যে যেখানে পাকিস্তানের কাছে ১৬৫টি মারণঘাতি পারমাণবিক অস্ত্র রয়েছে, সেখানে ভারতের কাছে রয়েছে ১৬০টি, ইসরাইলে এই সংখ্যা আরও কম, তাদের হাতে রয়েছে ৯০ টি পারমাণবিক ওয়ারহেড। গত বছর ভারতের কাছে ১৫৬টি পরমাণবিক অস্ত্র ছিল।

সূত্র: দেখলো

শুক্রবার, ১৭ জুন ২০২২, ০৩:৩৯

রাশিয়া ইচ্ছে করেই ‘সেই কাজটি’ করেছে, দাবি জার্মানির

রাশিয়া ইচ্ছে করেই ‘সেই কাজটি’ করেছে, দাবি জার্মানির

জার্মানির নর্ড স্ট্রিম পাইপলাইনে প্রতিদিন ১৬৭ মিলিয়ন কিউবিক মিটার গ্যাস পাঠাত রাশিয়ার গ্যাসপ্রোম।

কিন্তু মঙ্গলবার জার্মানিতে এই পাইপলাইনে প্রতিদিন ১০০ মিলিয়ন কিউবিক মিটার গ্যাস পাঠানো শুরু করে গ্যাসপ্রোম।

তারা জানায়, গ্যাস সরবরাহের কিছু যন্ত্রাংশ ঠিক করার জন্য দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু সেগুলো সময় মতো না আসায় গ্যাসের পরিমাণ কমিয়ে দিতে বাধ্য হয়েছে তারা।

গ্যাসপ্রোম জানিয়েছিল, বিষয়টি ‘প্রযুক্তিগত’ সমস্যা।

তবে জার্মানির অর্থমন্ত্রী রবার্ট হেবেক বুধবার বলেছেন, গ্যাসপ্রোম ইচ্ছে করে জার্মানিতে গ্যাস সরবরাহ কমিয়ে দিয়েছে। এটি প্রযুক্তিগত সমস্যা না। এটি ‘রাজনৈতিক’ সিদ্ধান্ত। রাজনৈতিক উদ্দেশ্য হাসিলের জন্যই রাশিয়া এটি করেছে।

জার্মানির অর্থমন্ত্রী হুশিয়ারি দিয়ে বলেছেন, সামনে জ্বালানির ওপর আরও বিধি-নিষেধ বাধা আরোপ করতে পারে রাশিয়া। এটি এখনো শেষ হয়নি।

এদিকে জার্মানিতে প্রায় ৪০ শতাংশ গ্যাস সরবরাহ কমিয়ে দিলেও জার্মানি গ্যাসের কোনো শঙ্কটে পড়বে না।

কিন্তু তারা আসন্ন শীতকালের জন্য তাদের গ্যাস ট্যাংকারে যে গ্যাস মজুদ করার পরিকল্পনা করছিল সেটি সম্ভব হবে না।

সূত্র: আল জাজিরা, দ্য গার্ডিয়ান

বৃহস্পতিবার, ১৬ জুন ২০২২, ০৩:৪৭

গাজার ৮০ শতাংশ শিশু হতাশায় ভোগে: সেভ দ্য চিলড্রেন

গাজার ৮০ শতাংশ শিশু হতাশায় ভোগে: সেভ দ্য চিলড্রেন

 গোটা ফিলিস্তিনেই ইসরায়েলি আগ্রাসনে অলিখিত কারাগারে পরিণত হয়েছে অনেক বছর ধরে। তবে পশ্চিম তীর কিছুটা শান্ত থাকলেও গাঁজা উপত্যাকায় ইসরায়েলি আগ্রাসন চলে সবচেয়ে বেশি।

আর এই অবরুদ্ধ অবস্থার প্রভাব পড়ছে গাজার শিশুদের ওপর। শিশু সুরক্ষায় কাজ করা বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা ‘সেভ দ্য চিল্ড্রেনের’ একটি প্রতিবেদন বলছে, গাজায় ১৫ বছর ধরে চলা অবরুদ্ধ অবস্থার কারণে প্রতি ৫ শিশুর মধ্যে ৪ জনই হতাশা, দুঃখ ও আতঙ্কে ভোগে। শতাংশের হিসেবে যা ৮০%।
‘ট্রাপড’ শিরোনামের ওই রিপোর্টে ৪৮৮ শিশু ও ১৬৮ পিতা-মাতার সাক্ষাৎকার নেওয়া হয়েছে। ২০০৭ সাল থেকে গাজাকে কার্যত অবরুদ্ধ করে রেখেছে ইসরায়েল।

তাই বর্তমানে গাজার ৮ লাখ শিশুর অনেকেই জানে না মুক্ত জীবন কাকে বলে।

২০১৮ সালের একই ধরনের একটি গবেষণা করেছিল সেভ দ্য চিল্ড্রেন। সেবার ৫৫ শতাংশ ছিল হতাশাগ্রস্ত শিশুর সংখ্যা, এবার সেই সংখ্যা বেড়ে ৮০ তে দাঁড়িয়েছে।


সূত্র: আল জাজিরা

বৃহস্পতিবার, ১৬ জুন ২০২২, ০৩:৩৯

কেন আরও আধুনিক ক্ষেপণাস্ত্র চাইছেন জেলেনস্কি?

কেন আরও আধুনিক ক্ষেপণাস্ত্র চাইছেন জেলেনস্কি?

 পশ্চিমা দেশগুলোর কাছে আরও আধুনিক ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবস্থা চাইছেন, রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি।

রাশিয়া ইউক্রেনের পূর্বাঞ্চলে ট্যাংক ও আর্টিলারি হামলা অব্যাহত রেখেছে। সাথে পদাতিক সেনাদের সহায়তায় বিমান থেকেও ক্ষেপণাস্ত্র ছোড়া হচ্ছে।
এছাড়াও কৃষ্ণসাগর থেকে ইউক্রেনের ভূখণ্ড লক্ষ্য করে ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়ছে রুশ জাহাজ।

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কির দাবি, অভিযান শুরুর পর থেকে এ পর্যন্ত ২ হাজার ৬০৬টি ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়েছে রাশিয়া।

এই রুশ আগ্রাসন রুখতে আধুনিক ক্ষেপণাস্ত্র অধিক কার্যকর হবে বলেই দাবি করেছেন জেলেনস্কি। তাই পশ্চিমাদের কাছে তিনি আরও আধুনিক ক্ষেপণাস্ত্র সরবরাহ করার আহ্বান জানিয়েছেন।

সূত্র: বিবিসি

মঙ্গলবার, ১৪ জুন ২০২২, ০৩:২০

ওমরাহ ভিসায় পুরো সৌদি আরব ঘোরার সুযোগ

ওমরাহ ভিসায় পুরো সৌদি আরব ঘোরার সুযোগ

বিশ্বের সকল দেশের নাগরিকরাই ওমরাহ ভিসায় পুরো সৌদি আরব ঘুরতে পারবেন। সব দেশের নাগরিকদের মতো বাংলাদেশি ওমরাহযাত্রীরাও পারবেন ওমরাহ ভিসায় পুরো সৌদি আরব ভ্রমণ করতে। ওমরাহ হজযাত্রীদের ভিসার মেয়াদ সর্বোচ্চ এক মাস থেকে বাড়িয়ে তিন মাস করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (৯ জুন) হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এ ঘোষণা দেন বাংলাদেশে সৌদি আরবের রাষ্ট্রদূত ইসা বিন ইউসুফ আল-দুহাইলান।

অনুষ্ঠানে রাষ্ট্রদূত আরও বলেন, হজযাত্রীরা এখন থেকে সরাসরি অনলাইনে ওমরাহ ভিসার জন্য আবেদন করতে পারবেন এবং একদিনের মধ্যেই তা পেয়ে যাবেন।

ইসা বিন ইউসুফ আল-দুহাইলান আরও বলেন, কুয়েতের পর বাংলাদেশই একমাত্র দেশ যাদেরকে অনলাইনে ওমরাহ ভিসার আবেদন করার সুযোগ দেওয়া হয়েছে। আবেদন করার ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই হজযাত্রীরা ভিসা পেয়ে যাবেন। এই ভিসার মেয়াদ থাকবে ৩ মাস। এই ভিসা নিয়ে পুরো সৌদি আরব ভ্রমণ করতে পারবেন হজযাত্রীরা।
 
এর আগে, ২ জুন দেশটির হজ ও ওমরাহবিষয়ক মন্ত্রী তৌফিক আল-রাবিয়াহ জানান, ওমরাহ পালনের জন্য আবেদনের ২৪ ঘণ্টার মধ্যে সৌদি আরব সরকার ভিসা দেবে।

মঙ্গলবার, ১৪ জুন ২০২২, ০৩:১৪

ইউক্রেনে পশ্চিমা অস্ত্রের বিশাল ডিপো ধ্বংসের দাবি রাশিয়ার
রয়টার্সের প্রতিবেদন

ইউক্রেনে পশ্চিমা অস্ত্রের বিশাল ডিপো ধ্বংসের দাবি রাশিয়ার

 পশ্চিম ইউক্রেনের তেরনোপিল অঞ্চলে আমেরিকা এবং ইউরোপ থেকে সরবরাহ করা অস্ত্রের একটি বিশাল গুদাম ধ্বংস করার দাবি করেছে রাশিয়া। এ হামলায় ক্যালিবার ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবহার করা হয় বলে জানায় মস্কো।

আজ রবিবার ইউক্রেনের পূর্বাঞ্চলীয় সেভিরোদোনেস্ক শহরের রাস্তায় রাস্তায় ইউক্রেন ও রুশ বাহিনীর মধ্যে সংঘর্ষ ছড়িয়ে পড়েছে বলে খবর প্রকাশের দিন পশ্চিমা অস্ত্রের গুদাম ধ্বংসের কথা জানাল রুশ সরকার।
এর আগে বেশ কয়েক দফা মার্কিন এবং ইউরোপীয় অস্ত্র চালানের ওপর হামলা চালিয়েছে রাশিয়া। চলতি মাসের প্রথম দিকে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বলেছিলেন, পশ্চিমা দেশগুলো যদি ইউক্রেনকে অস্ত্র সরবরাহ করে তাহলে তাতে রুশ সেনারা তাতে হামলা চালাবে।

সাম্প্রতিক দিনগুলোতে ইউক্রেনের নেতারা অস্ত্র সরবরাহ জোরদার করার জন্য পশ্চিমা দেশগুলোর প্রতি বারবার আবেদন জানাচ্ছেন। এদিকে, রাশিয়ার ইন্টারফ্যাক্স বার্তা সংস্থা আজ জানিয়েছে, রুশ সেনারা ক্যালিবার ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র দিয়ে ইউক্রেনের বিশাল অস্ত্রভাণ্ডার ধ্বংস করেছে।

এছাড়া রাশিয়ান বাহিনীর হাতে ইউক্রেনের তিনটি এসইউ-২৫ যুদ্ধবিমান ধ্বংস হয়েছে। ইউক্রেনের সূত্রগুলো অস্ত্র গুদামে হামলার কথা নিশ্চিত করেছেন। সূত্র : রয়টার্স

সোমবার, ১৩ জুন ২০২২, ০৩:০০

‘জয় শ্রী রাম’ ধ্বনি দিতে বাধ্য করল মুসলিম ভিক্ষুকদের
কান ধরে উঠবস! সামাজিক মাধ্যমে ভিডিও ভাইরাল

‘জয় শ্রী রাম’ ধ্বনি দিতে বাধ্য করল মুসলিম ভিক্ষুকদের

ভারতে বিজেপিশাসিত উত্তর প্রদেশে মুসলিম ফকিরদের জোর করে ‘জয় শ্রী রাম’ ধ্বনি দিতে বাধ্য করা হয়েছে। একইসঙ্গে তাদের কান ধরে উঠবসও করানো হয়েছে। পারসটুডে

উত্তর প্রদেশের গোন্ডায় তিন মুসলিম ফকিরের সঙ্গে দুর্ব্যবহারের ভিডিও প্রকাশ্যে  এসেছে। এখানে এক যুবক লাঠি উঁচিয়ে তাদের জোর করে ‘জয় শ্রী রাম’বলতে বাধ্য করে। কানপুরের সহিংসতার কথা উল্লেখ করে তাদেরকে সন্ত্রাসীও বলা হয় এবং কান ধরে উঠবসও করানো হয়।

এ সংক্রান্ত একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। পুলিশের বক্তব্য, এরা কোনো ফকির নয়, বরং মুসলিম যুবক, যারা ফকিরদের ছদ্মবেশে গ্রামে ঘুরে বেড়াচ্ছিল। তবে বিরোধ চরমে উঠলে পুলিশ ওই যুবককে গ্রেফতার করেছে।  ঘটনাটি উত্তর প্রদেশের গোন্ডার খড়গুপুর ডিঙ্গুর গ্রামের, যেখানে দুই যুবক ও একজন বুজুর্গ ভিক্ষার জন্য ঘুরে বেড়াচ্ছিলেন। এ সময়ে এক যুবক তাদের থামায়। প্রথমে তাদের নাম-ঠিকানা জিজ্ঞেস করে। এবং ‘আধার কার্ড’দেখাতে বলে। ওই ফকিররা তা দেখাতে রাজি না হলে ক্ষিপ্ত হয় ওই যুবক। একটা লাঠি উঁচিয়ে ফকিরদের কান ধরে উঠবস করতে থাকে। যুবকটি তাদের ‘জয় শ্রী রাম’ ধ্বনি দিতে বাধ্য করে এবং গ্রামে না ঘুরতেও হুমকি দেয়। গ্রামের অন্য লোকজনকেও যুবককে সমর্থন করতে দেখা যায়। ওই ঘটনার ভিডিও করে গ্রামেরই কেউ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোস্ট করেছে।

গ্রামটিতে মুসলিম ফকিরদের সাথে একজন যুবক শুধু দুর্ব্যবহার করেনি, ভিডিওতে অনেককে তাদের গালিগালাজ করতে দেখা যায়। অনেক মানুষের কণ্ঠস্বর স্পষ্ট শোনা যায়। শুধু তাই নয়, ফকিরদের গ্রাম থেকে বিতাড়িত করা হয়।  

২০২১ সালের ১০ অগাস্ট কানপুরের বাররা এলাকায় জোর করে একজন মুসলিম ই-রিকশা চালককে ‘জয় শ্রী রাম’ধ্বনি দিতে বাধ্য করা হয়। ওই ঘটনায় সেসময়ে  উগ্রহিন্দুত্ববাদী ‘বজরং দল’-এর নাম উঠে এসেছিল। ঘটনার পর প্রায় একমাস ধরে  এলাকায় উত্তেজনার পরিবেশ ছিল।

২০২১ সালের ১২ জুলাই উন্নাওতে, মাদ্রাসার শিশুদের ‘জয় শ্রী রাম’ ধ্বনি দেওয়ানোর ঘটনা প্রকাশ্যে আসে। এখানে মাদ্রাসার ছাত্ররা বিকেলে নামাজ পড়ার পর ক্রিকেট খেলতে যায়। এ সময় চারজন তাদেরকে মারধর করে এবং ‘জয় শ্রী রাম’ ধ্বনি দেওয়ার জন্য চাপ দেয়। ওই ঘটনায় শিশুদের জামাকাপড় ছিঁড়ে দেওয়া হয় এবং তাদের সাইকেল ভাঙচুর করা হয়। 

রোববার, ১২ জুন ২০২২, ০৩:৪৫

চীনের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার হুমকি তাইওয়ানের

চীনের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার হুমকি তাইওয়ানের

চীন ও তাইওয়ানের মধ্যে নতুন উত্তেজনা দেখা দিয়েছে। তাইওয়ান হুমকি দিয়েছে তারা চীনের বিরুদ্ধে বিশ্ব বাণিজ্যিক সংস্থায় বিচার দেবে।

চীন তাইওয়ানের কাছ থেকে ‘গ্রোপার মাছ’ আমদানি নিষিদ্ধ করার পর তাইওয়ান এমন হুমকি দিয়েছে।

চীন দাবি করেছে, তারা তাইওয়ান থেকে আসা গ্রোপার মাছে নিষিদ্ধ রাসায়নিক পেয়েছে।

গত বছর চীন তাইওয়ান থেকে আনারস, চিনি-আপেল ও মোম আমদানি নিষিদ্ধ করে। চীনের দাবি এগুলোতে তারা কীটপতঙ্গ পেয়েছে।

তবে তাইওয়ান এসব দাবি কঠিনভাবে অস্বীকার করেছে।

গত কয়েক বছরে তাইওয়ানের সঙ্গে চীনের সম্পর্ক খারাপ হয়েছে। কারণ চীন তাইওয়ানের বিরুদ্ধে সামরিক কর্মকান্ড বৃদ্ধি করেছে এবং দেশটির সার্বভৌমত্ব নিয়ে হুমকি দিয়ে যাচ্ছে।

এদিকে গ্রোপিং মাছ নিয়ে চীনের কাস্টমস কর্তৃপক্ষ শুক্রবার জানায়, তারা নিষিদ্ধ রাসায়নিক পেয়েছেন। এরপর তারা ঘোষণা দেয়, চীনের সাধারণ মানুষের স্বাস্থ্যের বিষয়টি বিবেচনা করে সোমবার থেকে গ্রোপিং মাছ আমদানি বন্ধ করে দেওয়া হবে।

তবে এর বিরোধিতা জানিয়ে তাইওয়ানের কৃষি মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী চেন চি-চুং বলেছেন, মাছে কোনো কিছু নেই। তারা চীনকে তথ্য পাঠাবেন এবং চীনের কাছ থেকে এ ব্যাপারে ফিরতি বক্তব্য পাওয়ার আশা প্রকাশ করেন।

এরপর তিনি জানান, যদি চীন ফিরতি বক্তব্য না দেয় তখন তাদের বিরুদ্ধে বিশ্ব বাণিজ্যিক সংস্থায় বিচার নিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিতে পারে তাইওয়ান।

সূত্র: ডেইলি সাবাহ

রোববার, ১২ জুন ২০২২, ০৩:১৯

রাশিয়ার ভাড়াটে সেনাঘাঁটিতে হামলা, নিহত ২২

রাশিয়ার ভাড়াটে সেনাঘাঁটিতে হামলা, নিহত ২২

২০১৪ সাল থেকে রাশিয়ার দখলে থাকা এক শহরে রুশ মার্সেনারি বা ভাড়াটে সৈন্যদের দল 'দ্য ওয়াগনার গ্রুপ'-এর এক স্থাপনায় হামলা চালিয়েছে ইউক্রেনের বাহিনী। লুহানস্কের গভর্নরের বরাত দিয়ে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

স্থানীয় সংবাদ মাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, হামলায় ২২ জন নিহত হয়েছে, আহত হয়েছে চার জনের বেশি। মার্চে ব্রিটিশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় ঘোষণা দেয়, ইউক্রেনে রাশিয়ার যুদ্ধে সহায়তায় ওয়াগনার গ্রুপ জড়িত হয়েছে।  

গভর্নর সের্গেই হাইদাই দাবি করেন, শুক্রবার পূর্ব ইউক্রেনের কাদিভকায় স্টেডিয়ামে ওয়াগনার গ্রুপের ঘাঁটি হামলার শিকার হয়। নিউজউইকের প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়।

হাইদাই শুক্রবার টুইটারে এক পোস্ট শেয়ার করে বলেন, দখলকৃত লুহানস্ক অঞ্চলে ওয়াগনারের ঘাঁটি ধ্বংস হয়েছে, মাত্র একজন বর্ণবাদী বেঁচে গেছেন। শত্রুর ঘাঁটি কাদিভকার এক স্থানীয় স্টেডিয়ামে অবস্থিত যা রাশিয়া ২০১৪ সালে নির্লজ্জভাবে দখল করে নেয়।

নিউজউইকের রিপোর্ট অনুসারে, ভিডিওতে এক বিল্ডিংয়ে আগুন জ্বলতে দেখা গেছে এবং আকাশে ঘন কালো ধোঁয়া উড়তে দেখা গেছে।

এদিকে রাশিয়া দাবি করেছে, রুশ সামরিক বাহিনী মিকোলাইভ অঞ্চলে দুইটি মিগ-২৯ বিমান এবং খারকিভ অঞ্চলে একটি সু-২৫ যুদ্ধ বিমান ভূপাতিত করেছে।

গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে সামরিক অভিযানের ঘোষণা দেন রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। এরপর আজ পর্যন্ত টানা ১০৮ দিনের মতো চলছে দেশ দুইটির সংঘাত। এতে দুই পক্ষের বহু হতাহতের খবর পাওয়া যাচ্ছে। তবে যুদ্ধ বন্ধে এখন পর্যন্ত কোনো লক্ষণ নেই। উল্টো পূর্ব ইউক্রেনে দেশ দুইটির মধ্যে সংঘাত আরও বেড়েছে।

রোববার, ১২ জুন ২০২২, ০৩:১০

ভারতের দৈনিক করোনা সংক্রণের সংখ্যা ৮ হাজার ছাড়িয়েছে

ভারতের দৈনিক করোনা সংক্রণের সংখ্যা ৮ হাজার ছাড়িয়েছে

 ভারতের মহামারী করোনাভাইরাসের দৈনিক সংক্রণের সংখ্যা ৮ হাজার ছাড়িয়েছে। দেশটির কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের প্রকাশিত তথ্য মতে, গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন আক্রান্ত হয়েছেন ৮ হাজার ৩২৯ জন; গত তিন মাসের মধ্যে যা সর্বোচ্চ।

দৈনিক সংক্রমণের শীর্ষে মহারাষ্ট্র। গত ২৪ ঘণ্টায় এই রাজ্যে নতুন আক্রান্ত ৩ হাজার ৮১ জন। তার মধ্যে মুম্বাইয়েই নতুন আক্রান্ত এক হাজার ৯৫৬ জন। মহারাষ্ট্রের পরই রয়েছে কেরালা (২,৪১৫)। তৃতীয় স্থানে রয়েছে দিল্লি (৬৫৫)। তার পরে রয়েছে কর্নাটক (৫২৫)।
ভারতে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় মৃত্যু হয়েছে ১০ জনের। শুক্রবার মৃতের সংখ্যা ছিল ২৪। সক্রিয় রোগীর সংখ্যা শুক্রবারের তুলনায় কিছুটা বেড়েছে। মোট সক্রিয় রোগীর সংখ্যা ৪০ হাজার ছাড়িয়েছে।

ভারতে দৈনিক করোনা সংক্রমণের হার বা পজিটিভিটি রেটও শুক্রবারের তুলনায় কিছুটা বেড়েছে। শনিবার দৈনিক সংক্রমণের হার ২.৪১ শতাংশ।

রোববার, ১২ জুন ২০২২, ০২:৫৭

হযরত মুহাম্মদ(সাঃ)কে নিয়ে কূটক্তিতে তোলপাড়!
ভারতে নুপুর শর্মা, আফগানিস্তানে আজমল

হযরত মুহাম্মদ(সাঃ)কে নিয়ে কূটক্তিতে তোলপাড়!

মুসলমানদের সর্বশ্রেষ্ঠ নবী হযরত মুহাম্মদ (সঃ)কে নিয়ে ভারতের নূপুর শর্মার অবমাননাকর বক্তব্য নিয়ে ভারত-বাংলাদেশ-পাকিস্তান, মধ্যপ্রাচ্যসহ মুসলমি জনগোষ্ঠী প্রধান রাষ্ট্রগুলোতে তোলপাড় চলছে। ভারতের ক্ষমতাসীন দলের রহস্যজনক নীরবতাকে মুসলিম রাষ্ট্রগুলো ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়াও ব্যক্ত করছে। মুসলিম জনগোষ্ঠীর রাষ্ট্রগুলোর সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক থেকে বাণিজ্য সম্পর্ক অব্দি এই ঘটনার রেশ টানতে হতে পারে ভারতকে। খোদ ভারতে বিজেপি নেত্রী নুপুর শর্মার আপত্তিজনক বক্তব্য নিয়ে সোরগোল চলছে। তার পক্ষেও কথা বলছেন অনেকে। সেলিব্রেটি অভিনেতা-অভিনেত্রীরাও পক্ষে-বিপক্ষে কথা বলছেন। বাংলাদেশের বিভিন্ন এলাকায় ধর্মপ্রাণ মুসলমানরা বিক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। ক্ষোভের আগুনে পুড়ছে দেশ।

শনিবার, ১১ জুন ২০২২, ০২:৫৭

উদ্বোধনের সময় ভেঙে পড়ল সেতু, মেয়রসহ আহত ২০

উদ্বোধনের সময় ভেঙে পড়ল সেতু, মেয়রসহ আহত ২০

মেক্সিকোর একটি শহরে উদ্বোধনের সময় নতুন এক সেতু ভেঙে পড়ে ২০ জনের বেশি মানুষ আহত হয়েছেন। সেতুটির উদ্বোধনীতে অংশ নেওয়া শহরের মেয়রও নিচে পড়ে গিয়ে আহত হয়েছেন। এই ঘটনায় চরম বিব্রতকর পরিস্থিতিতে পড়েছেন তিনি।

শুক্রবার, ১০ জুন ২০২২, ০৪:০৫

নিজেকে ‘পিটার দ্য গ্রেট’ ভাবছেন ভ্লাদিমি পুতিন
আল জাজিরার প্রতিবেদন

নিজেকে ‘পিটার দ্য গ্রেট’ ভাবছেন ভ্লাদিমি পুতিন

 রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বলেছেন, রাশিয়ার হারানো অঞ্চল ফিরিয়ে নেওয়া এবং রক্ষা করা প্রয়োজন। বৃহস্পতিবার দেশের তরুণ উদ্যোক্তাদের সঙ্গে সাক্ষাতে রুশ প্রেসিডেন্ট এই মন্তব্য করেন। বক্তব্যে পুতিন নিজেকে ‘পিটার দ্য গ্রেট’এর সঙ্গে তুলনা করেন।

আল জাজিরার খবরে বলা হয়েছে, তরুণ উদ্যোক্তাদের সঙ্গে আলাপে পুতিন সেন্ট পিটারর্সবার্গ জয় করে  নতুন রুশসাম্রাজ্য প্রতিষ্ঠা করার সঙ্গে তার ক্রিমিয়া অঞ্চল সংযুক্ত করার তুলনা করেন।
পুতিন বলেন, পিটার দ্য গ্রেট যখন নতুন রাজধানী প্রতিষ্ঠা করেছিলেন, তখন কোনো ইউরোপীয় দেশ তাতে স্বীকৃতি দেয়নি। সবাই এটাকে সুইডেন হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছিল। রাশিয়া-ইউক্রেন-বেলারুশের জনগণ (স্লাভিক পিপল) ফিনো উগ্রিকদের সঙ্গে সর্বদা একসঙ্গে বসবাস করেছে। ওই অঞ্চল রাশিয়ার নিয়ন্ত্রণে ছিল।

পুতিন বলেন, তিনি (পিটার) কী করেছিলেন, অঞ্চল ফিরিয়ে নিয়ে শক্তিশালী করেছিলেন। এখন সেই কাজ  তার নিজের ওপর বর্তায় বলে মন্তব্য করেন তিনি।

উল্লেখ্য, সম্রাট পিটার দ্য গ্রেটকে আধুনিক রাশিয়ার রূপকার বলা হয়। তিনি ১৬৮২ থেকে ১৭২৫ পর্যন্ত সমগ্র রাশিয়া শাসন করেন।

শুক্রবার, ১০ জুন ২০২২, ০৩:৪৪

পরমাণু কেন্দ্রের নজরদারি ক্যামেরা বন্ধ করল ইরান

পরমাণু কেন্দ্রের নজরদারি ক্যামেরা বন্ধ করল ইরান

 

জাতিসংঘের সংশ্লিষ্ট সংস্থা কর্তৃক ইরানের বহুল আলোচিত পরমাণু কার্যক্রমে নজরদারি করা দুটি ক্যামেরা বন্ধ করে দিয়েছে তেহরান।  

আন্তর্জাতিক আণবিক শক্তি সংস্থার (আইএইএ) ক্যামেরা ইরানের একটি পরমাণুবিষয়ক কেন্দ্র পর্যবেক্ষণ করত।

ইরানের রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যমে গতকাল বুধবার এই তথ্য জানানো হয়। তবে ঠিক কোন স্থাপনায় এই ঘটনা ঘটেছে, তা জানা যায়নি।


চলতি সপ্তাহে অস্ট্রিয়ার ভিয়েনাভিত্তিক সংস্থা আইএইএর সভায় ইরানের উপস্থিতি নিশ্চিত করতে পশ্চিমা দেশগুলোর প্রচেষ্টার মধ্যে তেহরান এই পদক্ষেপ নিল। এ নিয়ে আইএইএ তাত্ক্ষণিকভাবে কোনো মন্তব্য করেনি।  

পরমাণু কর্মসূচি নিয়ে বিতর্কের পরিপ্রেক্ষিতে ২০১৫ সালে পশ্চিমা দেশগুলোর সঙ্গে ইরানের সমঝোতা চুক্তি হয়। এতে ইরানের কর্মসূচি সীমিত করার বিনিময়ে দেশটির ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা শিথিলের কথা ছিল। কিন্তু চুক্তির অন্যতম অংশীদার যুক্তরাষ্ট্র ট্রাম্প সরকারের সময় ২০১৮ সালে নিজেদের এ থেকে প্রত্যাহার করে নেয়। পরিণতিতে ইরান আবার ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণের মাত্রা বাড়াতে থাকে। পরে যুক্তরাষ্ট্রের জো বাইডেন প্রশাসন চুক্তিতে ফিরে আসার প্রতিশ্রুতি দেয়। তবে দীর্ঘ আলোচনার পরও পাশ্চাত্যের সঙ্গে চুক্তি আবার চালু করার বিষয়টি গত মার্চে ভেস্তে যায়। সূত্র : টাইমস অব ইন্ডিয়া

 

বৃহস্পতিবার, ৯ জুন ২০২২, ০২:০২

সর্বশেষ
জনপ্রিয়