সোমবার   ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৩   মাঘ ২৩ ১৪২৯   ১৫ রজব ১৪৪৪

সর্বশেষ:
ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট হিসেবে শপথ নিলেন লুলা যে কোনো দিন খুলবে স্বপ্নের বঙ্গবন্ধু টানেল শীতে কাঁপছে উত্তরাঞ্চল দেশে করোনার নতুন ধরন, সতর্কতা বিএনপির সব পদ থেকে বহিষ্কার আব্দুস সাত্তার ভূঁইয়া নৌকার প্রার্থীর পক্ষে মাঠে কাজ করবো: মাহিয়া মাহি মর্মান্তিক, মেয়েটিকে ১২ কিলোমিটার টেনে নিয়ে গেল ঘাতক গাড়ি! স্ট্যামফোর্ড-আশাসহ ৪ বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত বর্ষবরণে বায়ু-শব্দদূষণ জনস্বাস্থ্যে ধাক্কা কোনো ভুল মানুষকে পাশে রাখতে চাই না বাসস্থানের চরম সংকটে নিউইয়র্কবাসী ট্রাকসেল লাইনে মধ্যবিত্ত-নিম্নবিত্ত একাকার! ছুটি ৬ মাসের বেশি হলে কুয়েতের ভিসা বাতিল ১০ হাজার বাড়িঘর ক্ষতিগ্রস্ত চুক্তিতে বিয়ে করে ইউরোপে পাড়ি আইফোন ১৪ প্রোর ক্যামেরায় নতুন দুই সমস্যা পায়ের কিছু অংশ কাটা হলো গায়ক আকবরের ১৫ দিনে রেমিট্যান্স এসেছে ১০০ কোটি ডলার নারী ফুটবলে দক্ষিণ এশিয়ার চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ অতীতের সব রেকর্ড ভেঙে আবার বাড়লো স্বর্ণের দাম
১০৬

সীমান্ত পরিদর্শনে প্রেসিডেন্ট বাইডেন

বর্ডার পার হলেই এসাইলাম নয়

প্রকাশিত: ১৪ জানুয়ারি ২০২৩  


 

 

আজকাল রিপোর্ট
যুক্তরাষ্ট্রের সীমান্তে দাঁড়িয়ে প্রেসিডেন্ট বাইডেন বললেন, বর্ডার ক্রস করলেই এসাইলাম নয়। সীমান্তে এলেই আমেরিকা প্রবেশ করা যাবে না। অবৈধ অভিবাসীদের সীমান্ত থেকে দূরে থাকতে হুঁশিয়ারিও দেন তিনি
প্রয়োজনীয় কাগজপত্র না থাকলে ঢোকা মাত্রই সবাইকে বহিস্কার করা হবে। গত রোববার তিনি টেক্সাসের এল পাসো শহরের সীমান্তবর্তী এলাকা পরিদর্শনে যান। ডেমোক্র্যাট অধ্যুষিত এ শহরটি মাইগ্রেন্টদের চাপে হাবুডবু খাচ্ছে। মেক্সিকোর লাগোয়া এ শহরের প্রতিদিন হাজার হাজার ইমিগ্র্যান্ট প্রবেশ করে। সীমান্ত এলাকা পরিদর্শনকালে তিনি বলেন, প্রতিমাসে ৩০ হাজার মাইগ্রেন্ট প্রবেশ করতে পারবে যদি তাদের প্রয়োজনীয় কাগজপত্র থাকে। তাদের অবশ্যই নিজ দেশে থাকতেই আবেদন করতে হবে। তাদেও একজন মার্কিন স্পন্সর থাকতে হবে এবং তাদেও ব্যাকগ্রাউন্ড চেক করা হবে। অবশ্য বাইডেনের এ ঘোষণার তীব্র সমালোচনা করেছেন টেক্সাসের গর্ভনর অ্যাবোট।
 চলতি বছরের শুরু থেকে প্রতি মাসে কিউবা, নিকারাগুয়া, হাইতি ও ভেনিজুয়েলা থেকে ৩০ হাজার অভিবাসীকে নেবে যুক্তরাষ্ট্র। যুক্তরাষ্ট্রের সরকারের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, অভিবাসী নেবার এ কর্মসূচিতে গুরুত্ব দেয়া হবে ইউএস-মক্সিকো সীমান্তে অপেক্ষামান হাজার হাজার অভিবাসন প্রত্যাশীদের। তাদের বড় অংশ হাইতি থেকে এসেছে। আরও আছে কিউবা, নিকারাগুয়া ও ভেনিজুয়েলা থেকে আসা লোকজনও।
যুক্তরাষ্ট্রের সরকারি কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, গত অক্টোবরে যুক্তরাষ্ট্রে আসতে ইচ্ছুক ভেনিজুয়েলান নাগরিকদের জন্য একটি নতুন নীতি করেছিল ওয়াশিংটন। তদানুসারে ভেনিজুয়েলার যেসব নাগরিক যুক্তরাষ্ট্রে স্পন্সর জোগাড় করতে পারবেন, তারা দেশটিতে প্রবেশ ও স্থায়ীভাবে বসবাসের সুযোগ পাবেন।

 

সাপ্তাহিক আজকাল
সাপ্তাহিক আজকাল
এই বিভাগের আরো খবর