ঢাকা, ২০২২-০৬-৩০ | ১৬ আষাঢ়,  ১৪২৯
সর্বশেষ: 
উবার ও লিফট ড্রাইভারদের বেতন বৃদ্ধি নিরাপত্তা নিয়ে শংকিত আমেরিকা -চিকেন ফার্মে বার্ড ফ্লু আতঙ্ক মেডিকেইড হারাচ্ছেন লাখো আমেরিকান পাল্টে যাচ্ছে রাজনীতির হিসাব-নিকাশ! অনুসন্ধানী সাংবাদিকতায় হস্তক্ষেপ না করার ঘোষণা যুক্তরাষ্ট্র বিচার ১২৩ বছর আগে গ্রেপ্তার গাছ, শেকলে বন্দি আজো ফ্রান্স প্রেসিডেন্টকে চড় মারার মাশুল কতটা? কুরআনের আয়াত বাতিলে ‘ফালতু’ রিট করায় আবেদনকারীকে জরিমানা আদালতের দেশে বিদ্যুৎ উৎপাদনে নতুন রেকর্ড ওয়াক্ত ও তারাবি নামাজের জামাতে সর্বোচ্চ ২০ জন বিদেশে মারা গেছে ২৭০০ বাংলাদেশি আর্থিক ক্ষতি মেনেই সাঙ্গ হলো বইমেলা সুন্দরী মডেলের অপহরণ চক্র ! মোটরসাইকেল উৎপাদনে বিপ্লবে দেশ যুক্তরাজ্যে করোনার আরও মারাত্মক ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত ৮ থেকে ১২ সপ্তাহ বিরতিতে অক্সফোর্ডের টিকা বেশি কার্যকর সবাই সপরিবারে নির্ভয়ে করোনা ভ্যাকসিন নিন: প্রধানমন্ত্রী শেষ রাতে দু’রাকাত নামাজ জীবন পরিবর্তন করে দিতে পারে নতুন করোনাভাইরাস আতঙ্কে ইউরোপ-আমেরিকার শেয়ারবাজারে ধস জুনের মধ্যে আসছে আরও ৬ কোটি করোনার টিকা বাড়িভাড়ায় নাভিশ্বাস, ফের বাড়ানোর পাঁয়তারা অমিতাভের পর অভিষেকও করোনা আক্রান্ত বিশ্ব ধরেই নিচ্ছে বাংলাদেশ জালিয়াতির দেশ : শাহরিয়ার কবির ইরাকে মর্গের পাশে রাত কাটছে বাংলাদেশিদের! বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার পরামর্শক বাংলাদেশের সেঁজুতি সাহা সাহেদর টাকা থাকত নাসির, ইন্ডিয়ান বাবু ও স্ত্রী সাদিয়ার কাছে ‘বাংলাদেশিদের ভোট দিন’ মানবতার সেবায় কমিউনিটি নেতৃবৃন্দ অনিশ্চিতায় ফেরদৌস খন্দকার কৃষ্ণাঙ্গ হত্যা থামছেই না বিক্ষোভ অব্যাহত গভর্নরের সিদ্ধান্ত মানছে না মেয়র অভিবাসীরা জিতলেন হারলেন ট্রাম্প করোনার ধাক্কা - মে মাসে রপ্তানি কমেছে ২০ হাজার কোটি টাকার পুলিশ সংস্কার বিল উঠলো মার্কিন কংগ্রেসে লাইফ সাপোর্টে থাকা নাসিমের জন্য মেডিকেল বোর্ড পুনর্গঠন আইসিইউ নিয়ে হাহাকার ঈদের ছুটিতে অনিরাপদ হয়ে উঠছে গ্রামগুলো ঘরে ঘরে ভুতুড়ে বিল, বিদ্যুৎ বিভাগ বলছে সমন্বয় হবে নিউইয়র্কে ‘ট্রাম্প ডেথ ক্লক’ নিউইয়র্কে জেবিবিএ’র পরিচালক ইকবালুর রশীদ লিটনের মৃত্যু নিজ আয়ে চলা শুরু করলো বাংলাদেশ স্যাটেলাইট কোম্পানি কবে খুলবে নিউইয়র্ক নিউইয়র্কে এবার নতুন ভাইরাসে শিশুরা আক্রান্ত

বন্দুক আইন সংস্কার: মার্কিন সিনেটরদের মধ্যে কিছুটা সমঝোতা

প্রকাশিত: ০৩:২৪, ১৪ জুন ২০২২  

 

আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ন্ত্রণ আইন সংস্কার বিষয়ে রক্ষণশীল রিপাবলিক দলের বেশ কয়েকজন সিনেটরের সঙ্গে ক্ষমতাসীন ডেমোক্র্যাটদের সমঝোতা হয়েছে। এখন পর্যন্ত বন্দুক নিয়ন্ত্রণের বিরোধিতাকারী রিপাবলিক দলের ১০ সিনেটর বন্দুক নিয়ন্ত্রণের পক্ষে মত দিয়েছেন।

প্রস্তাবের বেশ কিছু বিষয়ে আলোচনা শেষ। সোমবারের মধ্যেই এর খসড়া তৈরি হওয়ার কথা ছিল।

যুক্তরাষ্ট্রে রাজনৈতিক দলগুলোর এই সমঝোতাকে স্বাগত জানিয়েছে আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ন্ত্রণপন্থী বিক্ষোভকারীরা।

সম্প্রতি নিউ ইয়র্কের বাফেলোতে সুপার মার্কেটে গণগুলিতে ১০ জন এবং টেক্সাসের উভালদের স্কুলে গণগুলির ঘটনায় ১৯ শিশুসহ ২১ জন নিহত হওয়ার প্রেক্ষাপটে যুক্তরাষ্ট্রে অস্ত্র নিয়ন্ত্রণ আইন পাসের দাবিতে নতুন করে জনমত জোরদার হয়েছে। গত শনিবার দেশজুড়ে বিক্ষোভ করে অস্ত্র নিয়ন্ত্রণের পক্ষের একটি সংগঠন। এতে যোগ দেয় বিপুলসংখ্যক মানুষ।  

আন্দোলনকারীদের ক্রমাগত দাবির মুখে অস্ত্র নিয়ন্ত্রণে সিনেট পর্যায়ে ডেমোক্র্যাট ও রিপাবলিকানদের এটাই প্রথম কোনো সমঝোতা। খসড়া প্রস্তাবে ২১ বছরের কম বয়সীদের কাছে অস্ত্র বিক্রির ক্ষেত্রে কঠোরভাবে ক্রেতার অতীত রেকর্ড যাচাই এবং বন্দুকের অবৈধ কেনাবেচার নিয়ন্ত্রণের বিষয় থাকবে বলে জানা গেছে।  

বন্দুক নিয়ন্ত্রণের পদক্ষেপের বিরুদ্ধে রিপাবলিকানরা বরাবরই কট্টর। সে কারণে আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ন্ত্রণের যেকোনো ধরনের পদক্ষেপে রিপাবলিকানদের সমর্থন বেশ তাৎপর্যপূর্ণ বিষয়। ১০০ আসনের সিনেটে বর্তমানে ডেমোক্রেটিক ও রিপাবলিক উভয় দলেরই সদস্য সংখ্যা সমান। সিনেটে কোনো প্রস্তাব পাস হতে হলে অবশ্যই ৬০ ভোটের প্রয়োজন হয়। সে হিসাবে বন্দুক নিয়ন্ত্রণ আইন পাসের জন্য রিপাবলিক দলের কমপক্ষে ১০ সিনেটরের সমর্থন প্রয়োজন, যা এই মুহূর্তে আছে।  

যুক্তরাষ্ট্রে বন্দুক আইন নিয়ে দলগুলোর সমঝোতাকে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ‘সঠিক পথে পদক্ষেপ' আখ্যা দিয়েছেন।  

এ বিষয়ে ২০১৮ সালে ফ্লোরিডার পার্কল্যান্ড স্কুলে গুলির ঘটনায় আহত ডেভিড হগ বলেন, ‘এটি ছোট হলেও একটি অগ্রগতি। ’ ২০১১ সালে অ্যারিজোনায় বন্দুক হামলায় আহত সাবেক আইন প্রণেতা গ্যাব্রিয়েল গিফোর্ডস বলেন, ‘এগিয়ে যাওয়ার গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ। ’ তিনি আরো দাবি করেন, এ উদ্যোগটি বিগত ৩০ বছরের মধ্যে প্রথম কোনো পদক্ষেপ, যার মধ্য দিয়ে কংগ্রেস বন্দুক সংশ্লিষ্ট নিরাপত্তায় বড় পদক্ষেপ নিতে পারে।

সিনেটে সংখ্যাগরিষ্ঠ ডেমোক্রেটিক দলীয় নেতা চাক শুমার বলেন, সার্বিক অগ্রগতিতে তিনি সন্তুষ্ট। খুঁটিনাটি বিষয় সুনির্দষ্টি করার পর শিগগিরই আইনটি সিনেটে ভোটাভুটির জন্য দিতে চান তিনি।  

আগ্নেয়াস্ত্র রাখার অধিকারের পক্ষে সক্রিয় যুক্তরাষ্ট্রের সবচেয়ে প্রভাবশালী সংগঠন ন্যাশনাল রাইফেল অ্যাসোসিয়েশন (এনআরএ) জানায়, আইন সংস্কারের সম্পূর্ণ খসড়া দেখে তারা এই বিষয়ে প্রতিক্রিয়া জানাবে। অস্ত্র আইনে কড়াকড়ির বিরুদ্ধে এনআরএ বরাবরই অনড় অবস্থান নিয়ে আসছে। সূত্র : বিবিসি

 

Space For Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement
সর্বশেষ
জনপ্রিয়