ঢাকা, ২০২১-০৬-২৫ | ১২ আষাঢ়,  ১৪২৮
সর্বশেষ: 
অনুসন্ধানী সাংবাদিকতায় হস্তক্ষেপ না করার ঘোষণা যুক্তরাষ্ট্র বিচার ১২৩ বছর আগে গ্রেপ্তার গাছ, শেকলে বন্দি আজো ফ্রান্স প্রেসিডেন্টকে চড় মারার মাশুল কতটা? কুরআনের আয়াত বাতিলে ‘ফালতু’ রিট করায় আবেদনকারীকে জরিমানা আদালতের দেশে বিদ্যুৎ উৎপাদনে নতুন রেকর্ড ওয়াক্ত ও তারাবি নামাজের জামাতে সর্বোচ্চ ২০ জন বিদেশে মারা গেছে ২৭০০ বাংলাদেশি আর্থিক ক্ষতি মেনেই সাঙ্গ হলো বইমেলা সুন্দরী মডেলের অপহরণ চক্র ! মোটরসাইকেল উৎপাদনে বিপ্লবে দেশ যুক্তরাজ্যে করোনার আরও মারাত্মক ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত ৮ থেকে ১২ সপ্তাহ বিরতিতে অক্সফোর্ডের টিকা বেশি কার্যকর সবাই সপরিবারে নির্ভয়ে করোনা ভ্যাকসিন নিন: প্রধানমন্ত্রী শেষ রাতে দু’রাকাত নামাজ জীবন পরিবর্তন করে দিতে পারে নতুন করোনাভাইরাস আতঙ্কে ইউরোপ-আমেরিকার শেয়ারবাজারে ধস জুনের মধ্যে আসছে আরও ৬ কোটি করোনার টিকা বাড়িভাড়ায় নাভিশ্বাস, ফের বাড়ানোর পাঁয়তারা অমিতাভের পর অভিষেকও করোনা আক্রান্ত বিশ্ব ধরেই নিচ্ছে বাংলাদেশ জালিয়াতির দেশ : শাহরিয়ার কবির ইরাকে মর্গের পাশে রাত কাটছে বাংলাদেশিদের! বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার পরামর্শক বাংলাদেশের সেঁজুতি সাহা সাহেদর টাকা থাকত নাসির, ইন্ডিয়ান বাবু ও স্ত্রী সাদিয়ার কাছে ‘বাংলাদেশিদের ভোট দিন’ মানবতার সেবায় কমিউনিটি নেতৃবৃন্দ অনিশ্চিতায় ফেরদৌস খন্দকার কৃষ্ণাঙ্গ হত্যা থামছেই না বিক্ষোভ অব্যাহত গভর্নরের সিদ্ধান্ত মানছে না মেয়র অভিবাসীরা জিতলেন হারলেন ট্রাম্প করোনার ধাক্কা - মে মাসে রপ্তানি কমেছে ২০ হাজার কোটি টাকার পুলিশ সংস্কার বিল উঠলো মার্কিন কংগ্রেসে লাইফ সাপোর্টে থাকা নাসিমের জন্য মেডিকেল বোর্ড পুনর্গঠন আইসিইউ নিয়ে হাহাকার ঈদের ছুটিতে অনিরাপদ হয়ে উঠছে গ্রামগুলো ঘরে ঘরে ভুতুড়ে বিল, বিদ্যুৎ বিভাগ বলছে সমন্বয় হবে নিউইয়র্কে ‘ট্রাম্প ডেথ ক্লক’ নিউইয়র্কে জেবিবিএ’র পরিচালক ইকবালুর রশীদ লিটনের মৃত্যু নিজ আয়ে চলা শুরু করলো বাংলাদেশ স্যাটেলাইট কোম্পানি কবে খুলবে নিউইয়র্ক নিউইয়র্কে এবার নতুন ভাইরাসে শিশুরা আক্রান্ত

‘দেশে চিহ্নিত কিছু বড় চোর, লজ্জায় মাথা হেট হয়’

প্রকাশিত: ০৩:২৯, ৭ জুন ২০২১  

দুর্নীতি এবং দেশ থেকে অর্থ পাচার সম্পর্কে বলতে গিয়ে সংসদে ক্ষোভ প্রকাশ করলেন আওয়ামী লীগের দলীয় সংসদ সদস্য (কুমিল্লা-৭) অধ্যাপক আলী আশরাফ।

রবিবার (৬ জুন) সংসদে ২০২০-২১ অর্থবছরের সম্পূরক বাজেটের ওপর সাধারণ আলোচনায় অংশ নিয়ে তিনি বলেন, ‘জীবনের মায়া নিয়ে আমরা মুক্তিযুদ্ধ করিনি। কিছু পাওয়ার, খাওয়ার বা প্রত্যাশার জন্য যুদ্ধ করিনি। লড়াই করেছিলাম বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে মানুষের মুখে হাসি ফোটানোর জন্য। সেই দেশে আজ চিহ্নিত কিছু বড় চোর। ঘৃণা ও লজ্জায় মাথা হেট হয়ে যায়। এত বড় বড় চোর, যাদের নাম ওঠে। অথচ প্রধানমন্ত্রী ও তার সরকার দ্ব্যর্থহীন কণ্ঠে বলেছেন, ‘দুর্নীতির বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স। অর্থ পাচারকারীদের বিরুদ্ধে যথেষ্ট শক্ত পদক্ষেপ নেওয়া দরকার।’

আলী আশরাফ বলেন, ‘বাজেট তো আমরা দিচ্ছি। কিন্তু বাস্তবায়নের জন্য সদিচ্ছা থাকতে হবে। এখানে অনেক মুক্তিযোদ্ধা আছেন, যাদের সামনে রেখে বলতে পারি, দুর্নীতি ও অর্থ পাচার করছে কিছু চি?িহ্নত লোক। বাজেট বাস্তবায়নে সরকারের নির্ধারিত লক্ষ্যে পৌঁছাতে হলে কর প্রশসানের দক্ষতা বাড়ানো প্রয়োজন। কর প্রশাসনকে ঢেলে সাজাতে হবে। ২০১০ সালে মুহিত (আবুল মাল আবদুল মুহিত) সাহেব যখন অর্থমন্ত্রী ছিলেন, তিনি বলেছিলেন উপজেলা পর্যায়ে কর প্রশাসন বিস্তৃত হবে। দেশে ২৫ লাখ লোক কর দেয়। এটা গৌরবের কথা। ট্যাক্সের নেট আরো বাড়াতে হবে। দক্ষতা বাড়াতে হবে।’

তিনি বলেন, ‘কর প্রশাসনের সামর্থ্য আছে। কর প্রশাসনের দক্ষতা, স্বচ্ছতা, সততা, নিষ্ঠা, একাগ্রতা যদি আমরা না বাড়াতে পারি, তাহলে বাজেটের ইপ্সিত লক্ষ্যে আমরা পৌঁছাতে পারব না। কোভিডের তৃতীয় ঢেউ যদি আসে, আমাদের প্রস্তুতি নিতে হবে। আমাদের সামনে এখানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আছেন। কোভিড-১৯-এর প্রথম ধাপ, দ্বিতীয় ধাপের পর এখন তৃতীয় ধাপ উঁকি দিচ্ছে। এর মধ্যে সংসদে বাজেট পেশ করা হয়েছে। এটা ভালো বাজেট। সম্ভাবনার বাজেট। এই বাজেট, সম্পূরক নিয়ে আলোচনা চলছে। সারা জাতি জানে কীভাবে এই সম্পূরক বাজেট, প্রায় ১৯টি মন্ত্রণালয়ের অর্থ কাটছাঁট করতে হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী প্রণোদনা দিয়ে অর্থনীতিকে শক্ত ভিতের ওপর দাঁড় করিয়েছেন।’

প্রস্তাবিত বাজেটে কোন খাতে কত বরাদ্দ

অধ্যাপক আলী আশরাফ বলেন, ‘মহামারির মধ্যে বাংলাদেশ বিশ্বে তাক লাগিয়ে দিয়েছে। কোভিড পরিস্থিতিতে যে বিপর্য়য়ের কথা ছিল, প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে আমরা সেটা মোকাবিলা করেছি। এটা চাট্টিখানি কথা নয়। এটা নিশ্চয়ই সফলতা। সারা পৃথিবী বাংলাদেশে গৃহীত পদক্ষেপের প্রশংসা করছে। তৃণমূলে প্রণোদনা পৌঁছেছে। মানুষ আজ উদ্বেলিত। সততা থাকলে এটা সম্ভব। প্রধানমন্ত্রীর মধ্যে সেই সততা আছে।’

মূল বাজেটের চেয়ে সম্পূরক বাজেট কমে গেছে: মহীউদ্দীন আলমগীর

সম্পূরক বাজেটের আলোচনায় অংশ নিয়ে সরকারি দলের সদস্য ও সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ড. মহীউদ্দীন খান আলমগীর বলেন, ‘কোভিডের কারণে আয় কমেছে। যে কারণে মূল বাজেটের চেয়ে সম্পূরক বাজেট কমে গেছে। মূল্যস্ফীতি ঠেকাতে মুদ্রা সরবরাহ বাড়ানো, সামাজিক নিরাপত্তা খাত আরো সম্প্রসারিত করা, কৃষি উত্পাদন বাড়াতে আমাদের আরো পদক্ষেপ নিতে হবে।’ তিনি বলেন, সরকার স্থানীয়ভাবে বিভিন্ন ব্যাংক থেকে ঋণ নিচ্ছে। দেশে ব্যাংক ও আর্থিক ব্যবস্থা বেশ প্রসারিত হয়েছে। এই ব্যাংক ও আর্থিক ব্যবস্থা সংস্কারের জন্য আরো পদক্ষেপ গ্রহণ করা দরকার। এজন্য একটি ব্যাংক কমিশন গঠনের পাশাপাশি কর কমিশন করার সময় এসেছে।

সিপিডি-বিএনপি আবোল-তাবোল বকছে: এ এইচ মাহমুদ আলী

সরকারি দলের সদস্য ও সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ এইচ মাহমুদ আলী বলেন, এই অর্থবছরে সিপিডি-বিএনপির নেতৃবৃন্দের প্রতিক্রিয়ার কারণ অন্য। মেগা প্রজেক্টগুলো শেষ হয়ে এসেছে। তা দেখে তারা আবোল-তাবোল বকছে।

বাজেট ঘাটতির অর্থ আসা নিয়ে সিপিডির শঙ্কা

টিকা নিয়ে বাংলাদেশ আন্তর্জাতিক রাজনীতির শিকার: বিএনপির হারুন

বিএনপির এমপি হারুনুর রশীদ সম্পূরক বাজেটের আলোচনায় অংশ নিয়ে বলেন, ‘চীন ও রাশিয়া ভ্যাকসিন দেওয়ার প্রস্তাব নিয়ে প্রথমে এসেছিল। তারা ট্রায়াল দিতে চেয়েছিল। কিন্তু আমরা তাদের ট্রায়ালের অনুমতি দিইনি। তাদের প্রস্তাব সেই সময় গ্রহণ করলে এখন আমাদের ভ্যাকসিনের সংকট হতো না। ভ্যাকসিন নিয়ে বাংলাদেশ আন্তর্জাতিক রাজনীতির শিকার, যে কারণে ভ্যাকসিন নিয়ে চীনের সঙ্গে কথা হলেও ভ্যাকসিন পাব কি না, তা অনিশ্চিত। আশা করব, এই অবস্থা থেকে পরিত্রাণে সরকার যথাযথ উদ্যোগ নেবে।’

সরকার করোনা ভাইরাসের ভারতে পাওয়া ধরন (ডেলটা) ঠেকাতে ‘ব্যর্থ’ হয়েছে মন্তব্য করে তিনি বলেন, গোটা বাংলাদেশে ভারতীয় ভ্যারিয়েন্ট ছড়িয়ে পড়েছে। রাজশাহী বিভাগে করোনা মারাত্মক পরিস্থিতি ধারণ করছে। আমচাষিরা ব্যাপক ক্ষতিগ্রস্ত। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সমালোচনা করে তিনি বলেন, কত টাকা কোভিড নিয়ন্ত্রণে ব্যয় হয়েছে, সরকারকে তার সঠিক ব্যাখ্যা দিতে হবে। স্বাস্থ্য বিভাগের সংস্কারের দাবি জানিয়ে হারুন বলেন, ‘সরকারি চিকিত্সকেরা সরকারি হাসপাতালে ডিউটি না করে ব্যক্তিগত ক্লিনিকে দায়িত্ব পালন করছেন। পদ্মা সেতু, মেট্রোরেল আমরা চাই। কিন্তু আগে মানুষকে বাঁচাতে হবে। মানুষ বাঁচলে সবকিছু আসবে।’

আমলা ও আমলানির্ভর সরকার চরম বেপরোয়া: রুমিন

সংরক্ষিত আসনে বিএনপি দলীয় সদস্য ব্যারিস্টার রুমিন ফারহানা বলেন, আমলা ও আমলানির্ভর এই সরকার চরম বেপরোয়া ও বাড়াবাড়ি আচরণ করছে। রিপোর্টে স্বাস্থ্য খাতের অনিয়ম-দুর্নীতি তুলে ধরায় আমলা ও আমলানির্ভর সরকারের হাতে হেনস্তার শিকার হয়েছেন সাংবাদিক রোজিনা ইসলাম। আমলাদের বাড়াবাড়ির শিকার হয়েছেন অনলাইনের এক সাংবাদিক। খাবার চেয়ে ৩৩৩ নম্বরে ফোন করে হেনস্তার শিকার হয়েছেন ফরিদ আহমেদ। তিনি বলেন, করোনার শুরুতেই মাস্ক, পিপিই, সুরক্ষা সরঞ্জাম, টেস্টের জালিয়াতি, কেনাকাটায় লুটপাটের খবর আমাদের সামনে নিয়মিত এসেছে। সম্প্রতি ভয়ংকর দুর্নীতির খবর এসেছে স্বাস্থ্য খাতে জনবল নিয়োগ নিয়েও। অন্যদের মধ্যে আলোচনায় অংশ নেন আওয়ামী লীগের আব্দুস শহীদ, তাহজীব আলম সিদ্দিকী ও সেলিমা আহমাদ।

ইত্তেফাক

Space For Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement Advertisement
সর্বশেষ
জনপ্রিয়