সোমবার , ১৬ এপ্রিল ২0১৮, Current Time : 5:31 pm
  • হোম »খেলা» এই গেইলকে বাতিল ভেবেছিল আইপিএল!




এই গেইলকে বাতিল ভেবেছিল আইপিএল!

সাপ্তাহিক আজকাল : 16/04/2018

চলতি আইপিএলের নিলামের তৃতীয় দফায় ক্রিস গেইলকে কিনেছিল কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব। একাদশেও জায়গাই পাচ্ছিলেন না। তৃতীয় ম্যাচে সুযোগ পেয়েই ৩৩ বলে ৬৩ করলেন। ৭টি চার, ৪টি ছক্কা। ২২ বলে করেছেন ফিফটি। প্রথম ৫৬ রানের ৫২ রানই এসেছে বাউন্ডারি থেকে। দৌড়ে নিয়েছেন মাত্র ৪ রান! আইপিএলে ১৯তমবারের মতো ম্যাচসেরা, এতবার ম্যান অব দ্য ম্যাচ আর কেউ হননি।

ক্রিস গেইল, টি-টোয়েন্টির ব্যাটিং রেকর্ডের দৈত্য! কিন্তু আইপিএল এবার বাতিলই ভাবছিল বুড়ো গেইলকে। ৩৯ বছর বয়স হয়ে যাবে মাস কয় পর। এবারের আইপিএলে দেখাই যেত না তাকে। গত জানুয়ারিতে দুই দফায় নিলামে তার নাম উঠলেও কেউ হাত তোলেনি। দানে দানে তিন দানে বিক্রি হয়েছেন। তৃতীয় দফায় তাকে কিনেছিল কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব। দলের বীরেন্দর শেবাগ এও বলেছিলেন, গেইল যদি তাদের দুই কি তিনটি ম্যাচ জিতিয়ে দেয়, তাতেও দুই কোটি রুপির পয়সা উশুল।

কিন্তু সেই গেইল একাদশে জায়গাই পাচ্ছিলেন না। অবশেষে নিলামের মতোই দানে দানে তিন দান। তাকে জায়গা করে দিতে পাঞ্জাবকে দুটি পরিবর্তন আনতে হলো। মার্কাস স্টয়নিসকে বাদ পড়তে হলো, পরিবর্তন এল ওপেনিং জুটিতে। আর তৃতীয় ম্যাচে সুযোগ পেয়েই গেইল বুঝিয়ে দিলেন, বুড়ো বাঘ গুহায় শুয়েই থাবা দিয়ে দুই-চার গন্ডা হরিণ শিকার করতে পারে।

গেইল ৩৩ বলে ৬৩ করেছেন। যেখানে ৭টি চার আর ৪টি ছক্কা ছিল । গেইলের তোলা ঝড়েই ১০ ওভারে ১ উইকেটে ১১৫ রান তুলেছিল পাঞ্জাব। চেন্নাইকে দিয়েছিল ১৯৮ রানের লক্ষ্য। রোমাঞ্চকর ম্যাচটা জিতেছে ৪ রানে। গেইল ম্যাচসেরাও হয়েছেন।

শুরুটা করেছিলেন ধীর লয়ে। অলস বাঘের রোদ পোহানোর মতো। আগে একটু শুয়ে-গড়িয়ে নিই। চেন্নাই অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি দ্রুত অফস্পিনও নিয়ে এসেছিলেন হরভজন সিংকে দিয়ে। ৯ বলে করলেন ৫। তিন ওভারে পাঞ্জাব ২০। এরপরই শুরু হলো গেইলের তা-ব। হরভজনের দ্বিতীয় ওভারের শুরুটা হলো চার ও ছক্কা দিয়ে। সবচেয়ে চড়াও হলেন দীপক চাহারের ওপর। পাওয়ার প্লের শেষ ওভারটায় দুই চার-ছক্কায় গেইল তুললেন ২২ রান।

নিজেও পরে ২২ বলে করেছেন ফিফটি। প্রথম ৫৬ রানের ৫২ রানই এসেছে বাউন্ডারি থেকে। দৌড়ে নিয়েছেন মাত্র ৪ রান! ফিফটির পর ব্যাটটাকে দুহাতে সন্তানের মতো করে ধরে দোলালেন। নতুন উদ্যাপন পেয়ে গেল ক্রিকেট!

একসময় তো সেঞ্চুরি করে ফেলবেন মনে হচ্ছিল। আইপিএলে ৫টি সেঞ্চুরি আছে গেইলের। সব মিলিয়ে টি-টোয়েন্টিতে ২০টি সেঞ্চুরি তাঁর। কিন্তু শেষ পর্যন্ত আইপিএল ক্যারিয়ারে ২২তম ফিফটিতেই তৃপ্ত থাকতে হলো। টি-টোয়েন্টিতে এটি তাঁর ৬৮ নম্বর ফিফটি, ভাবা যায়! ভাবা যায়, টি-টোয়েন্টিতে গেইল ১১ হাজার রান পেরিয়ে এখন ১২ হাজারের দিকে ছুটছেন! আইপিএলে ১৯তমবারের মতো ম্যাচসেরা, এতবার ম্যান অব দ্য ম্যাচ আর কেউ হননি। যেভাবে শুরু করলেন, সংখ্যাটা নিশ্চয়ই সামনে বাড়বে।

ম্যাচ শেষ হওয়ার পরও ছক্কা হাঁকিয়েছেন তাঁর মতো করে। বলেছেন, ‘আবারও এই টুর্নামেন্টে খেলতে পেরে ভালো লাগছে। সকালে একটা টেক্সট পেয়েছিলাম, যেখানে লেখা ছিল, আমি আজ খেলছি। সবচেয়ে ভালো লাগছে আমরা জিতেছি বলে। এটাই ক্রিস গেইল, বন্ধুরা। যে শুধু চার-ছক্কা হাঁকায়, এক-দুই রান নেওয়া নিয়ে মাথাব্যথা নেই।’ প্রথমআলো



Chief Editor & Publisher: Zakaria Masud Jiko
Editor: Manzur Ahmed
37-07 74th Street, Suite: 8
Jackson Heights, NY 11372
Tel: 718-565-2100, Fax: 718-865-9130
E-mail: ajkalnews@gmail.com
� Copyright 2009 The Weekly Ajkal. All rights reserved.